অভ্যাস বদলে ফেলুন তাহলে সঞ্চয় বেড়ে যাবে

এমন কিছু অভ্যাস রয়েছে যা আমরা ইচ্ছে করলেই পরিবর্তন করতে পারি

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মানুষ অভ্যাসের দাস। কোন কাজ নিয়মিত করতে করতে সেটা এক সময় আমাদের অভ্যাসে পরিণত হয়। এমন অনেক অভ্যাস রয়েছে যা আমরা ইচ্ছে করলেই পরিবর্তন করতে পারি। সেই সাথে খরচ কমিয়ে সঞ্চয় বৃদ্ধি করতে পারি। আজ আমরা এমন কিছু অভ্যাস সম্পর্কে জানবো যা পরিবর্তনের মাধ্যমে খরচ কমিয়ে নিজেদের সঞ্চয় বৃদ্ধি করতে পারি।

১। অগ্রিম মাসিক আয়-ব্যয় হিসাব তৈরি করুনঃ

আপনার মাসিক আয় কত এবং সেই আয় হতে কোন কোন খাতে কেমন ব্যয় করবেন মাসের শুরুতেই তার একটি তালিকা তৈরি করুন। তারপর সারা মাস সেই তালিকা অনুযায়ী খরচ পরিচালনা করুন। তাহলে আয়ের সাথে ব্যয়ের একটি সামঞ্জস্যতা বজায় থাকবে। যারা অগ্রিম আয়-ব্যয় হিসাব রাখে না, মাসের শেষে দেখা যায় সেই মাসে তাদের আয়ের তুলনাই ব্যয় বেশি হয়ে গেছে। ফলে সঞ্চয় করা সম্ভব হয় না।

২। মাসের শুরুতেই সঞ্চয় খাতে অর্থ জমা করুনঃ

কখনই এমন ভাববেন না যে, মাসের শেষে যা অবশিষ্ট থাকবে তাই সঞ্চয় করব। তাহলে ওই মাসে আর সঞ্চয় করা হবে না অথবা সম্ভব হলেও সেটা খুবই কম। তাই এই অভ্যাস পরিবর্তন করে মাসের শুরুতে আয়-ব্যয় হিসাবে অর্থ বণ্ঠন করার পর যে পরিমান অর্থ অবশিষ্ট থাকবে সেই অর্থ সঞ্চয় খাতে জমা করুন। তাহলে আপনার মাসিক খরচের প্রতি আরো বেশি মনযোগ থাকবে। এছাড়া মাসের শেষে আরো কিছু অর্থ বেঁচে থাকলে সেই অর্থ আবার মাসের শেষে জমা করুন।

৩। গ্রুপের সাথে ভ্রমণে যাওয়াঃ

সাপ্তাহিক ছুটির দিনলোতে অনেকেই ফামিলীসহ ঘুড়তে যায়। এতে আপনার যে পরিমাণ অর্থ ব্যয় হয় তার থেকে বিভিন্ন গ্রুপের সাথে ঘুড়তে যেতে পারেন। তাহলে অনেকটা খরচ কম হবে এবং সেই বেঁচে যাওয়া অর্থ সঞ্চয় করতে পারবেন।

৪। ডিজিটাল সুযোগ-সুবিধা ব্যবহার করুনঃ

বর্তমানে ঘরে বসেই ডিজিটাল পদ্ধতিতে বিদ্যুৎ, পানি, গ্যাস, টেলিফোন ইত্যাদির বিল দেওয়া যায়। তাই ব্যাংকে বা কোন এজেন্টের কাছে যাওয়া আসার ক্ষেত্রে অর্থ এবং সময় ব্যয় না করে ঘরে বসেই এগুলো দিন। তাহলে কিছুটা অর্থ সঞ্চয় হবে।

৫। বিভিন্ন অফার গ্রহণঃ

অনেক সময় বিভিন্ন কোম্পানী তাদের পণ্য বিক্রয়ের জন্য জনসাধারণের জন্য অফার দিয়ে থাকে। আপনি আপনার প্রয়োজনীয় অফার গ্রহণ করতে পারেন। এর ফলে কিছুটা অর্থ সঞ্চয় করতে পারবেন। অনেকেই ভেবে থাকেন এই অফার দেওয়া পণ্যগুলো হয়তো নিম্নমানের। এই ধারণা ভুল, কারণ বিভিন্ন কোম্পানী তাদের পণ্যের ব্যবহারকারী বৃদ্ধি করতে এই ছাড় দিয়ে থাকে। তবে অপ্রয়োজনীয় কোনকিছু অফার দিলেও ক্রয় করবেন না।

৬। সঠিক দাম জেনে পণ্য ক্রয় করুনঃ

কোন পণ্য ক্রয় করার সময় অবশ্যই তার সঠিক দাম যাচাই করুন। হুট করে পণ্য ক্রয়ের অভ্যাস পরিত্যাগ করুন। অনেক সময় দেখা যায় একই পণ্যের দাম বিভিন্ন দোকানে ভিন্ন। তাই সঠিক দাম জেনে পণ্যটি ক্রয় করুন।

Advertisements
Loading...