The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

১৬ বছরের কিশোরী শান্তিতে ‌নোবেলের জন্য মনোনীত! কিন্তু কেনো?

পরিবেশ রক্ষা নিয়ে যুবসমাজের চেতনা জাগিয়ে তোলার অদম্য এই কাজটি একা হাতেই শুরু করেছিল গ্রেটা থানবার্গ

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ১৬ বছরের কিশোরী শান্তিতে ‌নোবেলের জন্য মনোনীত! কিন্তু কেনো এতো ছোট বয়সী একজন কিশোরী এমন বিশাল একটি পুরস্কার পেতে চলেছেন?

১৬ বছরের কিশোরী শান্তিতে ‌নোবেলের জন্য মনোনীত! কিন্তু কেনো? 1

পরিবেশ রক্ষা নিয়ে যুবসমাজের চেতনা জাগিয়ে তোলার অদম্য এই কাজটি একা হাতেই শুরু করেছিল গ্রেটা থানবার্গ। গত আগস্ট মাসে তার শুরু করা সেই ‘‌ইয়ুথ স্ট্রাইক’‌ আন্দোলন সুইডেন হতে আজ ছড়িয়ে পড়েছে বিশ্বের ১০৫ দেশের ১৬৫৯টি শহরে! কয়েক লক্ষ কিশোর–কিশোরী, যুবক-যুবতী আজ সুইডেনের এই ছোট্ট মেয়েটির পাশে দাঁড়িয়ে পরিবেশরক্ষায় মানুষের সচেতনতা গড়ে তোলার কাজ করে চলেছেন।

জানা গেছে, সুইস কিশোরীর সেই অসাধারণ উদ্যোগকে সম্মান জানিয়ে ২০২০–র নোবেল শান্তি পুরস্কারের জন্য তাঁকে মনোনীত করেছে নোবেল কমিটি। নোবেল শান্তি পুরস্কারের মনোনয়ন পেয়ে টুইটারে গ্রেটার প্রতিক্রিয়া হলো, ‘‌এই মনোনয়নে আমি সম্মানিত ও কৃতজ্ঞ। আমরা এটা চালিয়ে যাবো যতোদিন প্রয়োজন।’‌

নরওয়ের সমাজকর্মী ফ্রেডি আন্দ্রে জানিয়েছেন, ‘‌এবার আমরা গ্রেটার নাম প্রস্তাব করেছি, কারণ এখনও যদি পরিবেশ বাঁচাতে আমরা সচেষ্ট না হই তাহলে তা হবে যুদ্ধ, বিবাদ ও তাতে শরণার্থীদের জন্ম দেবে। থানবার্গ একটা গণ আন্দোলন শুরু করেছে যা আমার মনে হয় শান্তির পথে একটা বিশাল অবদান রাখছে।’‌

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালে ১৭ বছর বয়সে নোবেল শান্তি পুরস্কার পেয়েছিলেন পাকিস্তানের কিশোরী মালালা ইউসুফজাই। এবার গ্রেটা থানবার্গ এই পুরস্কার পেলে সেই হবে সর্বকনিষ্ঠ নোবেল শান্তি পুরস্কারপ্রাপ্ত ব্যক্তি।

Loading...