The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

শ্রীলঙ্কার পর্যটন খাতে ব্যাপক ধস নেমেছে

সম্প্রতি রাজধানী কলম্বোসহ বিভিন্ন শহরের গির্জা ও বিলাসবহুল হোটেলে সিরিজ বোমা হামলার পর হতে স্থবির হয়ে পড়েছে দ্বীপরাষ্ট্রটিতে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ দক্ষিণ এশিয়ার একটি দ্বীপ রাষ্ট্র হলো এই শ্রীলঙ্কা। নয়নাভিরাম প্রাকৃতিক সৌন্দর্যমন্ডিত দেশটি সারা পৃথিবীর পর্যটকদের কাছে গ্রীষ্মকালীন ভূ-স্বর্গ হিসেবে পরিচিত। কিন্তু সিরিজ বোমা হামলার কারণে শ্রীলঙ্কার পর্যটন খাতে ব্যাপক ধস নেমেছে।

শ্রীলঙ্কার পর্যটন খাতে ব্যাপক ধস নেমেছে 1

সম্প্রতি রাজধানী কলম্বোসহ বিভিন্ন শহরের গির্জা ও বিলাসবহুল হোটেলে সিরিজ বোমা হামলার পর হতে স্থবির হয়ে পড়েছে দ্বীপরাষ্ট্রটিতে।

গত ২১ এপ্রিল ওই বোমা হামলার ঘটনায় ২৫৩ জন নিহত হয়। আহত হয় আরও ৫ শতাধিক ব্যক্তি। হতাহতদের মধ্যে বেশ কয়েকজন বিদেশী পর্যটকও ছিলেন। তারপরই নাগরিকদের জন্য শ্রীলঙ্কা ভ্রমণে সতর্কতা জারি করে বেশ কয়েকটি দেশ। এর ব্যাপক প্রভাব পড়েছে ‘গ্রীষ্মমণ্ডলীয় স্বর্গ’ হিসেবে পরিচিত দ্বীপটির পর্যটন শিল্পে, যা অনিশ্চিয়তার মধ্যে ফেলে দিয়েছে দেশটির এই খাতের ব্যবসায়ীদের।

সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা গেছে, শুধু পর্যটন খাত থেকেই দেশটির জিডিপির ৫ শতাংশ আয় হয়ে থাকে। তবে ভয়াবহ এই হামলার কারণে ব্যাপক ধস নেমেছে দেশটির পর্যটন শিল্পে।

সারাবছরই দেশটিতে পর্যটকদের আনাগোনা থাকলেও হামলার পরপরই দেখা গেছে ভিন্ন রকম চিত্র। শ্রীলঙ্কায় অবস্থান করা নাগরিকদের দ্রুত দেশে ফেরার পাশাপাশি নতুন করে ভ্রমণ সতর্কতাও জারি করেছে বেশ কয়েকটি দেশ। যে কারণে আরও হামলার আশঙ্কায় হোটেল এবং ফ্লাইটের বুকিং বাতিল করেছেন পর্যটকরা।

দেশটির অর্থনীতি ও পর্যটন শিল্পের জন্য ভয়াবহ বিপর্যয় উল্লেখ করেছেন শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনা। সম্প্রতি তিনি এক সাক্ষাৎকারে বলেন, “দেশের অর্থনীতিকে বাঁচাতে যেকোনো উপায়ে পর্যটন খাতকে পূর্বের অবস্থানে ফিরিয়ে আনা জরুরি হয়ে পড়েছে।”

Loading...