The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

২০২১ সাল নাগাদ অর্ধেক স্মার্টফোনেই থাকবে ৩টি করে ক্যামেরা!

২০১৮ সালের মার্চে বিক্রি হওয়া প্রায় ৬ শতাংশ স্মার্টফোনের পেছনেই রয়েছে তিন বা তার চেয়েও বেশি ক্যামেরা সেন্সর

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ দিন যতো গড়াচ্ছে ততোই স্মার্টফোনের পরিধি বাড়ছে। নতুন নতুন প্রযুক্তি সংযোজিত হচ্ছে স্মার্টফোনগুলোতে। ক্যামেরা সেট হচ্ছে ৩/৪ এমনটিক আরও বেশি। ধারণা করা হচ্ছে, ২০২১ সাল নাগাদ অর্ধেক স্মার্টফোনেই থাকবে ৩টি করে ক্যামেরা!

২০২১ সাল নাগাদ অর্ধেক স্মার্টফোনেই থাকবে ৩টি করে ক্যামেরা! 1

স্মার্টফোনের বাজারে বর্তমানে চলছে ‘মেগাপিক্সেল যুদ্ধ’– ক্যামেরায় মেগাপিক্সেল কতো বাড়ানো যায় এবং কতো বেশি ক্যামেরা দেওয়া যায় তার প্রতিযোগিতা শুরু হয়েছে। ২০২১ সালের মধ্যে ৫০ শতাংশ স্মার্টফোনে তিন বা তার চেয়েও বেশি ক্যামেরা সেন্সর থাকবে বলে ধারণা করছে কাউন্টারপয়েন্ট নামক একটি রিসার্চ।

জানানো হয়েছে যে, ২০১৯ সালে এই প্রতিযোগিতায় নতুন এক ধারা আনছে অরিজিনাল ইকুইপমেন্ট ম্যানুফ্যাকচারারস (ওইএম)। স্মার্টফোনে তিনটি ক্যামেরা এখন যেনো আরও বেশি জনপ্রিয় হয়ে উঠছে।

২০১৮ সালের মার্চে বিক্রি হওয়া প্রায় ৬ শতাংশ স্মার্টফোনের পেছনেই রয়েছে তিন বা তার চেয়েও বেশি ক্যামেরা সেন্সর। ২০১৯ সালের শেষ নাগাদ এর পরিমাণ বেড়ে ১৫ শতাংশ ও ২০২০ সালের মধ্যে ৩৫ শতাংশ হবে বলে ধারণা করা হয়েছে। সেই হিসেবে ২০২১ সাল নাগাদ তা গিয়ে দাঁড়াবে ৫০%।

এই বিষয়ে কাউন্টারপয়েন্ট রিসার্চের ডিভাইসেস অ্যান্ড ইকোসিস্টেম বিভাগের জেষ্ঠ্য বিশ্লেষক হানিশ ভাটিয়া বলেছেন, “ডুয়াল ক্যামেরার মতোই ট্রিপল ক্যামেরা প্রাথমিকভাবে দামি স্মার্টফোনগুলোতে দেওয়া শুরু হয়েছে। ২০১৮ সালের শেষ ও ২০১৯ সালের শুরুর দিকে সাশ্রয়ী মূল্যের প্রিমিয়াম ও মাঝারি মানের স্মার্টফোনেও ৩ বা তার চেয়ে বেশি ক্যামেরা দেওয়া হয়।”

এ বছরের এপ্রিল মাস পর্যন্ত ৪০টি মডেলের স্মার্টফোন উন্মোচন করা হয়েছে যার পেছনে ৩ বা তার বেশি ক্যামেরা রয়েছে।

শুধু তাই নয়, ২০১৯ সালের দ্বিতীয়ার্ধে ৬৪ মেগাপিক্সেল ক্যামেরার স্মার্টফোন আনার প্রত্যাশা করছে স্মার্টফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠানগুলো। যা স্মার্টফোনের ক্ষেত্রে এক মাইল ফলক হবে।

Loading...