The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

বিয়ের পোশাকে এক বছর কাটানোর সিদ্ধান্ত নিলেন এক নারী!

এই ব্যতিক্রমি ঘোষণাটি দিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার অ্যাডিলেডের বাসিন্দা ট্যামি হল

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ সত্যিই মাঝে মধ্যেই আমাদের বিস্মিত হতে হয় কিছু ঘটনার জন্য। আজও রয়েছে এমন একটি ঘটনার কথা। এক নারী সিদ্ধান্ত নিয়েছেন যে, বিয়ের পোশাকেই তিনি এক বছর কাটাবেন!

বিয়ের পোশাকে এক বছর কাটানোর সিদ্ধান্ত নিলেন এক নারী! 1

আমাদের নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য সামগ্রির মধ্যে পোশাকও একটি অন্যতম পণ্য। পোশাক না হলে আমাদের চলে না। তবে এই পোশাক অনেক সময় আমরা নানা ধরনের ফ্যাশনে পরে থাকি। আবার প্রয়োজনীয় এই জিনিসটি নিয়ে আবার আমরা অনেক সময় গুরুত্বপূর্ণ এই পোশাক নিয়ে নানা রসিকতা করে থাকি। যেমন এবার এমন একজন নারীর খবর পাওয়া গেছে যিনি বিয়ে করার পর আর পোশাকটি ছাড়বেন না বলে জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন পরবর্তী এক বছর তিনি এই বিয়ের পোশাকেই কাটিয়ে দেবেন!

এই ব্যতিক্রমি ঘোষণাটি দিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার অ্যাডিলেডের বাসিন্দা ট্যামি হল। তিনি ফুটবল ম্যাচ দেখা, মাছ ধরা, জিমে যাওয়া, বেড়ানোর সময় একটি বিশেষ পোশাক পরেই বের হন। সেটি হলো তার বিয়ের পোশাক! পরিবেশ সচেতন ট্যামির এমন কাজের পেছনে রয়েছে একটি মহান উদ্দেশ্যও।

অস্ট্রেলিয়া হতে ২০১৬ সালে আমাদের পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত ভ্রমণে আসেন ৪৩ বছর বয়সী ট্যামি হল। তিনি ভারতের নানা জায়গায় ঘুরেন, সেখানকার মানুষদের সঙ্গে কথাও বলেন। আবার তাদের জীবনযাত্রার মান বোঝার চেষ্টাও করেন ট্যামি হল।

ট্যামি হল ঘরের কাজও করছেন ওই বিয়ের পোশাক করে

ভারতের মানুষের জীবনযাত্রা দেখে ট্যামির মধ্যে বেশ পরিবর্তন আসে। তিনি অনুভব করেন যে অল্প কিছু দিয়েও জীবনকে চালিয়ে নেওয়া সম্ভব। তারপর তিনি একটি সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন। সেই সিদ্ধান্ত সম্পর্কে ট্যামির কাছ থেকেই জানা যায়। ট্যামি বলেন, ‘ভারতে ঘোরার পর আমার উপলব্ধি হয়েছে যে সামাজিকভাবে আমরা অনেক বেশি সুযোগ সুবিধা ভোগ করে থাকি। যা একেবারেই উচিৎ নয়। তাই আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছি, গোটা একটি বছর নতুন কোনো পোশাক এমনকি জুতাও আমি কিনবো না।’

ট্যামি হল আরও জানিয়েছেন যে, ২০১৮ সালে তাঁর বিয়ে হয়। যে কারণে বিয়ের প্রস্তুতি শুরু হয়ে যাওয়ায় তাকে নতুন কিছু পোশাক কিনতে হয়েছিলো। বিয়ের দিন পরার জন্য বিশেষ পোশাকটির জন্য তাকে ৯৮৫ পাউন্ড খরচ করতে হয়। যে কারণে তার পণ ভঙ্গ হয়ে যায়। তবে তিনি তার প্রতিজ্ঞা থেকে সরে আসতে মোটেও রাজি নন।

বিয়ের পোশাকে এক বছর কাটানোর সিদ্ধান্ত নিলেন এক নারী! 2 ট্যামি হল মাছ ধরতেও যাচ্ছেন ওই বিয়ের পোশাকে

২০১৮ সালে বিয়ের পোশাকের জন্য এতো অর্থ খরচ করার পর ট্যামি সিদ্ধান্ত নেন যে, এরপর আগামী এক বছর তিনি আর কোনো রকম পোশাক কিনবেন না। যেমন ভাবা ঠিক তেমন কাজ। ২০১৮ সালের অক্টোবরের পর হতে এ পর্যন্ত নতুন কোনো পোশাকই কেনেননি ট্যামি হল।

শুধুমাত্র তাই নয়, তিনি ভাবেন একটা পোশাক যেটি কিনা শুধুমাত্র কয়েক ঘণ্টার জন্য পরতে হবে তার পেছনে এতো খরচ করার মানেই হলো অর্থের অপচয়। তাই তিনি সিদ্ধান্ত নেন যে, তার বিয়ের সাদা রঙের সুন্দর পোশাকটিই তিনি সব জায়গায় পরে যাবেন। যে কারণে একটি বার্তাও সবার কাছে পৌঁছে যাবে। আর তা হলো ‘ইচ্ছা থাকলে নতুন নতুন পোশাক না পরেও স্বাভাবিক জীবন যাপন করা যায়’।

ট্যামি হল ফুটবল ম্যাচ দেখছেন ওই বিয়ের পোশাকে

ট্যামি শুধুমাত্র প্রত্যেক দিনের কাজকর্মই নয়, এই পোশাকেই বিদেশ ভ্রমণও করেছেন তিনি। পাবলিক ট্রান্সপোর্টেও ঘুরেছেন তাঁর বিয়ের এই পোশাকটি পরেই। এবার তিনি পরিকল্পনা করেছেন যে, আইসল্যান্ডেও যাবেন তাঁর বিয়ের এই পোশাকটি পরেই!

তথ্যসূত্র: https://www.odditycentral.com

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...