The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

রোবট পৌঁছে দিচ্ছে চীনের হোটেলবন্দিদের খাবার! [ভিডিও]

হোটেলের প্রতি রুমে ঘুরে ঘুরে খাবার পৌঁছে দিচ্ছে রোবট

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মারণব্যধি করোনা ভাইরাস আতঙ্কে চীনের যে যেখানে ছিলেন সেখানেই আটকে রয়েছেন। অনেক মানুষ আটকে আছেন হোটেলবন্দি। এরা হোটেলের রুম হতে বেরও হতে পারছেন না। রোবট পৌঁছে দিচ্ছে চীনের হোটেলবন্দিদের খাবার!

রোবট পৌঁছে দিচ্ছে চীনের হোটেলবন্দিদের খাবার! [ভিডিও] 1

মারণব্যধি করোনা ভাইরাস আতঙ্কে প্রযুক্তির সাহায্য নিচ্ছে চীন। হোটেলের প্রতি রুমে ঘুরে ঘুরে খাবার পৌঁছে দিচ্ছে রোবট। এর ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে।

ছড়িয়ে পড়া ওই ভিডিওটি চীনের হনঝাউয়ের একটি আবাসিক হোটেলের। তাতে দেখা যাচ্ছে যে, ছোট্ট একটি রোবট স্তরে স্তরে সাজানো খাবার নিয়ে প্রতিটি রুমের সামনে পৌঁছে যাচ্ছে। তারপর জোরে ঘোষণা করছে যে, ‘হ্যালো। মিষ্টি লিটল পিনাট (রোবটটির নাম) আপনার খাবার নিয়ে পৌঁছে গেছে, খাবারটি সংগ্রহ করে নিন। সংগ্রহ করা হয়ে গেলেই ফিনিশ বোতামটি টিপে দিন।’

খাবার সংগ্রহের পর ফিনিশ বোতামে চাপ দেওয়া মাত্রই আবারও পিনাট রোবটটি বলে উঠছে, ‘খাবার উপভোগ করুন, কিছু প্রয়োজন হলে ইউচ্যাটে হোটেলের স্টাফকে জানান।’ হোটেলের একটা রুমে খাবার পৌঁছে দেওয়ার সব প্রক্রিয়া সম্পন্ন হওয়ার পর আবারও রোবট রওনা দিচ্ছে অন্য রুমের দিকে।

আনন্দবাজার পত্রিকার এক খবরে জানা যায়, ছড়িয়ে পড়া এই ভিডিওটি জানুয়ারি মাসের। ২৭ এবং ২৮ জানুয়ারি এই দুদিন হনঝাউয়ে পৌঁছানো একটি বিমানের ৩৩৫ যাত্রীকে ওই হোটেলেই নজরবন্দি করে রাখা হয়। কারণ সিঙ্গাপুর হতে হনঝাউয়ে পৌঁছানো ওই বিমানের দু’জন যাত্রীর করোনা ভাইরাস সংক্রমণ ধরা পড়ে। তারপর বিমানের সব যাত্রীকে দুই দিনের জন্য পৃথক পৃথক করে পর্যবেক্ষণের জন্য রাখা হয়েছিল ওই হোটেলেই।

এটিই প্রথম নয়, করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে প্রথম থেকেই প্রযুক্তির সাহায্য নিয়ে আসছে চীন। বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসার সরঞ্জামও পৌঁছে দিচ্ছে রোবট। এমনকি রাস্তাতেও নামানো হয়েছে রোবট। গুয়াংঝৌয়ের একটি বাজার এলাকাতেও এরকম একটি যন্ত্রমানব নিয়োগ করা হয়েছে। কেও মাস্ক না পরলেই তাকে বকা দিচ্ছে সেই রোবট!

শুধু রোবট নয়, কিছু চীনা প্রযুক্তি সংস্থা এক বিশেষ ধরনের মোবাইল অ্যাপ তৈরি করেছেন। এতে ব্যবহারকারীরা জানতে পারবেন যে, তারা যে বিমানে উঠছেন বা ট্রেনে চড়ছেন, তাতে কোনো ভাইরাস আক্রান্ত রোগী সফর করছেন কি-না।

এতেকিছু করেও করোনা ভাইরাসের আক্রমণ ঠেকাতে পারেনি চীন। প্রতিদিনই লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে মৃত ও আক্রান্ত মানুষের সংখ্যা।

দেখুন ভিডিওটি

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...