The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

ভারতে করোনায় আক্রান্ত হলেন একই পরিবারের ২৬ জন!

প্রত্যেকের রিপোর্ট পজিটিভ আসার পরই সংক্রমণ ছড়ানোর আশঙ্কায় এলাকাটিকে লকডাউন ঘোষণা করা হয়

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ভারতের দিল্লিতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন একই পরিবারের ২৬ জন সদস্য। দিল্লির জাহাঙ্গীরপুরীতে থাকে পারিবারটি। এই সংক্রমণ ধরা পড়ার পর গোটা এলাকা লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে।

ভারতে করোনায় আক্রান্ত হলেন একই পরিবারের ২৬ জন! 1

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়, দিল্লির জাহাঙ্গীরপুরীতে থাকেন ওই পারিবারটি। প্রত্যেকের রিপোর্ট পজিটিভ আসার পরই সংক্রমণ ছড়ানোর আশঙ্কায় এলাকাটিকে লকডাউন ঘোষণা করা হয়। লোকজনের ঢোকা-বেরোনো বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

এক পরিবারের এই ২৬ সদস্যসহ শনিবার বিকেল পর্যন্ত দিল্লিতে করোনা ভাইরাস আক্রান্ত বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১,৭০৭ ও মৃত্যু হয়েছে ৪২ জনের।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ হতে শনিবার প্রেস বিবৃতিতে জানানো হয় যে, রাজাধানীতে করোনা আক্রান্ত ৬২%-র সঙ্গে দিল্লির নিজামউদ্দিন মার্কাজের যোগও রয়েছে।

ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য মতে, এ পর্যন্ত ভারতে করোনায় মারা গেছেন ৫৫৯ জন। আক্রান্ত হয়েছেন ১৭ হাজার ৬১৫ জন। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছেন মাত্র ২,৮৫৪ জন।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...