The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

আশীর্বাদ সিনেমার নায়িকা হচ্ছেন মাহি

আগে থেকেই জানা গিয়েছিল রোশান এই ছবিতে অভিনয় করবেন। ১৯ আগস্ট নিশ্চিত হওয়া যায় মাহির ব্যাপারে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ অবশেষে ‘আশীর্বাদ’ সিনেমার নায়িকা হিসেবে চূড়ান্ত হয়েছে মাহিয়া মাহি। সরকারি অনুদান পাওয়া এই ছবির মাহির নায়ক রোশান। এই প্রথমবারের মতো জুটি বাঁধছেন তারা।

আশীর্বাদ সিনেমার নায়িকা হচ্ছেন মাহি 1

আগে থেকেই জানা গিয়েছিল রোশান এই ছবিতে অভিনয় করবেন। ১৯ আগস্ট নিশ্চিত হওয়া যায় মাহির ব্যাপারে। ছবির প্রযোজক জেনিফার ফেরদৌস এই বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

২০১৯-২০২০ অর্থবছরে সরকারি অনুদানে নির্মিতব্য পূর্ণদৈর্ঘ্য ১৬টি চলচ্চিত্রকে অনুদান দেওয়া হয়েছে। এগুলোর মধ্যে অন্যতম হলো ‘আশীর্বাদ’। এর প্রযোজক ও কাহিনীকার জেনিফার ফেরদৌস। এই ছবিটি পরিচালনা করবেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারজয়ী নির্মাতা মোস্তাফিজুর রহমান মানিক।

ছবিতে মাহিকে চূড়ান্ত করা সম্পর্কে প্রযোজক জেনিফার বলেন, ‘সরকারি অনুদান পাওয়ার পর হতেই আশীর্বাদ ছবির প্রধান নারী চরিত্র সুবর্ণার জন্য নায়িকা খুঁজা হচ্ছিল। অবশেষে মাহিয়া মাহিকে আমরা চুক্তিবদ্ধ করলাম। আশা করছি ইন্ডাস্ট্রির শীর্ষ নায়িকার সঙ্গে আমাদের কাজের দারুণ অভিজ্ঞতাও হবে।’

নায়িকা মাহিও বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেছেন তিনি এ ছবিতে চুক্তিবদ্ধ হওয়ার মুহূর্তে তোলা বেশকিছু ছবি নিজের ফেসবুকে শেয়ারও করেছেন। ছবিতে মাহির সঙ্গে নায়ক রোশানসহ প্রযোজক ও পরিচালককেও দেখা গেছে।

মাহি আরও জানান, মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক এই ছবির সুবর্ণা চরিত্রটি মূলত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন ছাত্রীর চরিত্র। মুক্তিযুদ্ধের আগের উত্তাল রাজনীতি ও মুক্তিযুদ্ধের পটভূমি নিয়ে ছবিটি নির্মিত হচ্ছে। প্রধান চরিত্রে থাকতে পেরে মাহি উচ্ছ্বসিত।

পরিচালক মোস্তাফিজুর রহমান মানিক এই বিষয়ে বলেছেন, ‘আমরা এ পর্যন্ত নায়ক এবং নায়িকা চূড়ান্ত করেছি। বাকি অভিনয়শিল্পীদের নাম খুব শীঘ্রই প্রকাশ করবো।’

ছবিটির পোস্ট প্রোডাকশনের কাজ চলছে। আগামী মাসের প্রথম সপ্তাহেই এর শুটিং শুরু হবে বলে জানিয়েছেন নির্মাতা।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...