The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

redporn sex videos porn movies black cock girl in blue bikini blowjobs in pov and wanks off.

লক্ষ লক্ষ হাঙরের প্রাণের বিনিময়ে বাঁচবে মানুষ!

তবে বিষয়টি নিয়ে এখনই কতোটা এগোনো যাবে তা নিয়ে অনিশ্চিয়তাও রয়েছে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ভাবতেই কেমন লাগে! এ আবার কেমন বৈজ্ঞানিক সিদ্ধান্ত? করোনার হাত থেকে বাঁচতে মৃত্যু দন্ড দিতে হবে লক্ষ লক্ষ হাঙরকে!

লক্ষ লক্ষ হাঙরের প্রাণের বিনিময়ে বাঁচবে মানুষ! 1

বলা হয়েছে যে, লক্ষ লক্ষ হাঙরের প্রাণের বিনিময়ে করোনার হাত হতে বাঁচবে মানুষ! করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা ক্রমশ বেড়েই চলেছে। অপরদিকে করোনা বধে টিকা তৈরিতে উঠে পড়ে লেগেছে প্রতিটি দেশ। সম্প্রতি এক গবেষণায় উঠে এসেছে এক চাঞ্চল্যকর তথ্য। যার পরিণামে হয়তো মরতে হতে পারে অন্তত ৫ লক্ষ হাঙরকে! তবে বিষয়টি নিয়ে এখনই কতোটা এগোনো যাবে তা নিয়ে অনিশ্চিয়তাও রয়েছে। কারণ হলো আশঙ্কা প্রকাশ করেছে একাধিক সামুদ্রিক প্রাণী রক্ষাকারী সংগঠনও। তাদের স্পষ্ট বক্তব্য হলো, ‘মানুষের প্রাণ বাঁচাতে গিয়ে অন্য প্রাণী হত্যা! এ আবার কেমন বৈজ্ঞানিক সিদ্ধান্ত। করোনার হাত হতে বাঁচতে মৃত্যুদণ্ড দিতে হবে লক্ষ লক্ষ হাঙরকে!’

কেনোই বা গবেষণায় উঠে এলো হাঙরের কথা? কারণ হলো বেশির ভাগ টিকাতেই প্রয়োজন ‘অ্যাজুভ্যান্ট’। এটি একটি ফার্মাকোলজিক্যাল এজেন্ট, যেটি ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়তে সক্ষম। এই উপাদানটি পাওয়া যায় কেবলমাত্র হাঙর মাছের লিভারে। একদিকে যেমন গোটা বিশ্বে ভ্যাকসিনের প্রয়োজনীয়তা দ্রুতহারে বৃদ্ধি পাচ্ছে। অপরদিকে বিজ্ঞানীদের হাঙর নিধনের তথ্য নিয়েও টিকা তৈরির কাজে সবুজ সংকেত দিতেও রাজি নয় বহু সংগঠন।

শুধুমাত্র হাঙরই নয়, আরও বেশ কিছু প্রাণীর লিভারেও পাওয়া যায় এই তেলটি। তবে বেশির ভাগ ক্ষেত্রে হাঙরের লিভার হতে তেল নেওয়া হয়ে থাকে। জানা গেছে, শুধুমাত্র আমেরিকার বাসিন্দাদের বাঁচাতে প্রয়োজন ২১ হাজার হাঙর। সেখানে গোটা বিশ্বের মানুষকে বাঁচাতে কতো হাঙরের প্রাণ নিয়ে নিতে হবে তার অঙ্ক কষাও কঠিন ব্যাপার। গাছ থেকেও পাওয়া যায় এই ‘স্কুইলিন অয়েল’। গাছ থেকেও সেই তেল জোগাড় করার ভাবনা চিন্তা-ভাবনা করতে পারে বিজ্ঞানীরা, পরামর্শ দিয়েছেন সামুদ্রিক প্রাণী রক্ষাকারী সংগঠকরা।

যে গতিতে চলছে গবেষণা, তাতে করে আগামী বছর একাধিক সংস্থার টিকা আবিষ্কার হবে বলে মনে করছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...
sex không che
mms desi
wwwxxx