The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

ইহুদিবাদী ইসরাইল ২০২০ সালের সবচেয়ে নিন্দিত দেশ!

জাতিসংঘের কার্যক্রম পর্যবেক্ষণকারী জেনেভাভিত্তিক বেসরকারি সংস্থা ইউএন ওয়াচ জানিয়েছে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদ (ইউএনজিএ) ইহুদিবাদী ইসরাইলের বিরুদ্ধে ১৭টি নিন্দা প্রস্তাব এ বছর পাস করেছে। সেই হিসেব মতে ইহুদিবাদী ইসরাইল ২০২০ সালের সবচেয়ে নিন্দিত দেশ!

ইহুদিবাদী ইসরাইল ২০২০ সালের সবচেয়ে নিন্দিত দেশ! 1

জাতিসংঘের কার্যক্রম পর্যবেক্ষণকারী জেনেভাভিত্তিক বেসরকারি সংস্থা ইউএন ওয়াচ জানিয়েছে, এ বছর অর্থাৎ ২০২০ সালে জাতিসংঘ সবচেয়ে বেশি নিন্দা করেছে ইহুদিবাদী রাষ্ট্র ইসরাইলকে।

গত সপ্তাহে দুটি নিন্দা প্রস্তাবসহ এ সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৭। বিশ্বের বাকি দেশগুলোর ক্ষেত্রে এমন প্রস্তাব এসেছে মোট ৬টি। এর মধ্যে রয়েছে উত্তর কোরিয়া, সিরিয়া, ইরান এবং মিয়ানমারের বেলায় নিন্দা প্রস্তাব এসেছে একটি করে। অপরদিকে দুটি নিন্দা প্রস্তাব এসেছে ক্রিমিয়ার বিরুদ্ধে।

সংবাদ মাধ্যম আলজাজিরা জানিয়েছে যে, বিদায়ী ২০২০ সালে জাতিসংঘে সবচেয়ে নিন্দিত দেশই হলো ইসরাইল। করোনা মহামারীর মধ্যেও ইসরাইলে দমন-পীড়ন থামেনি।

ইসরাইলের বিরুদ্ধে আসা প্রস্তাবগুলোর মধ্যে দুটি ছিল ফিলিস্তিন এবং সিরিয়ার প্রাকৃতিক সম্পদ লণ্ঠনের বিষয়ে। দখলকৃত পশ্চিম তীরে ফিলিস্তিনের এবং গোলান মালভূমিতে সিরিয়ার প্রাকৃতিক সম্পদসমূহ চুরি করে ইসরাইল। এছাড়াও গোলান মালভূমিতে অবৈধ দখলদারি ধরে রাখা এবং সেখানে বসতি স্থাপনের জন্য একটি, ফিলিস্তিনি শরণার্থীদের সম্পত্তি এবং তাদের রাজস্ব ফেরত দেওয়ার বিষয়ে একটি নিন্দা প্রস্তাব রয়েছে তেলআবিবের বিরুদ্ধে।

মূলত জাতিসংঘের নিন্দা প্রস্তাবের কোনো কার্যকারিতা না থাকলেও বিশ্বব্যাপী এর প্রতীকী তাৎপর্য অবশ্যই রয়েছে। ইসরাইল সব সময় ফিলিস্তিনিদের অধিকার লঙ্ঘন করে থাকে।

ফিলিস্তিনিদের ওপর দমন-পীড়ন এবং নিয়মিতভাবে সিরিয়ায় হামলা করে দখলদার ইহুদিবাদী রাষ্ট্র ইসরাইল।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...