The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

হারানো ফোন খুঁজে পাবেন যেভাবে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ আমাদের মাঝে মধ্যেই এমন অবস্থা হয় যে, মোবাইল ফোনটা কোথায় রেখেছেন তা বেমালুম ভুলে বসে আছেন! আজ জেনে নিন হারানো ফোন খুঁজে পাওয়ার পদ্ধতি।

হারানো ফোন খুঁজে পাবেন যেভাবে 1

সোফার নিচে নাকি টেবিলে রাখা কাগজের স্তুপের মধ্যে, নাকি বাসায় ফোনটি আনতেই ভুলে গেছেন! সব সম্ভাব্য জায়গা খোঁজার পরেও যখন ফোন মিলছে না, তখন সাহায্য নিতে হয় অন্য কারও মোবাইল ফোনের।

তবে আপনার ফোনটা হয়তো সাইলেন্ট করা রয়েছে, কল ঢুকলেও তো রিংটোন বাজবে না! তাহলে আপনি কী করবেন? কীভাবে খুঁজে পাবেন আপনার মোবাইল ফোন? মোবাইল হারানোর এই বিষয়টা যতোটা চিন্তার তার থেকেও বেশি বিরক্তিকর ব্যাপার! তবে হরহামেশাই ঘটতে থাকা এমন ঘটনা। এ থেকে আপনাকে উদ্ধার করবে জনপ্রিয় সার্চ ইঞ্জিন গুগল।

আপনার হারানো মোবাইল ফোনটা যদি সাইলেন্ট মোডে থাকে তাহলে মোবাইল কিংবা কম্পিউটার হতে গুগল-এ (https://www. google. com/android/find) গিয়ে ‘ফাইন্ড মাই ফোন’ লিখতে হবে। এবার নিজের জি মেইল সাইন ইন করুন। সেখানে আপনি আপনার মোবাইলের লোকেশনও দেখতে পাবেন গুগল-এ।

মোবাইলকেও যদি আপনার এলাকাতেই দেখানো হয়, সে ক্ষেত্রে বাঁ দিকে থাকা (PLAY SOUND) অপশনটি ব্যবহার করতে হবে। যে কারণে কম্পিউটার হতেই আপনার মোবাইলে রিংটোন বাজানো সম্ভব হবে। আপনার ডিভাইসটিতে গুগল অ্যাকাউন্টে সাইন ইন করা থাকলেই এই সুবিধাটি পেতে পারেন।

তবে মোবাইল যদি সত্যিকারভাবেই হারিয়ে যায় বা চুরি হয়ে যায় ও দ্রুত খুঁজে পাওয়ার সুযোগেও যদি খুঁজে না পান, সে ক্ষেত্রে আপনি মোবাইল লক করে দেওয়ার ব্যবস্থাও নিতে পারেন। একটি পাসওয়ার্ড দিয়ে লক করে দিতে পারবেন সেটটি। উদ্ধারের পর সেই পাসওয়ার্ড দিয়ে সেট আনলকও করে নিতে পারবেন।

তবে আপনার সেটটি যদি আর উদ্ধারের আশা নাই থাকে কিংবা উদ্ধার করার হ্যাপা নিতে না চান তাহলে আপনার ফোনে থাকা গুরুপ্তপূর্ণ ডাটাগুলো ডিলেটও করে দিতে পারবেন। আপনার মোবাইল যদি অফলাইনে থাকে, তবে যখনই অনলাইনে আসবে, তখন সঙ্গে সঙ্গেই সব তথ্যই মুছে যাবে।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...