The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

শক্তিশালী প্রসেসরের রিয়েলমি নারজো সিরিজের নতুন গেমিং স্মার্টফোন আসছে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ তরুণ-প্রজন্মের পছন্দের ব্র্যান্ড রিয়েলমি আকর্ষণীয় স্পেসিফিকেশন ও ফিচারের নারজো সিরিজের নতুন গেমিং স্মার্টফোন বাজারে আনতে চলেছে।

শক্তিশালী প্রসেসরের রিয়েলমি নারজো সিরিজের নতুন গেমিং স্মার্টফোন আসছে 1

নতুন এই স্মার্টফোনটি ব্যবহারকারীদের স্মার্টফোনের অভিজ্ঞতা আরও উন্নত করবে ও পাওয়া যাবে দারুণ ডিজাইনের নতুন নীল রঙয়ের বক্সে।

এই স্মার্টফোন বাংলাদেশে নারজো সিরিজের নতুন সংযোজন হতে চলেছে। উদ্ভাবনী স্মার্ট ডিভাইস প্রবর্তন করে রিয়েলমি ইতিমধ্যেই তরুণদের মন জয় করে নিতে সক্ষম হয়েছে। নারজো সিরিজটি রিয়েলমির গেমিং সিরিজ– এই স্মার্টফোনের গেমিং প্রসেসর, গেমিং এক্সপেরিয়েন্সকে করে তুলবে আরও বেশি মসৃণ।

এর আগেও রিয়েলমি কিছুদিন আগে বাংলাদেশের বাজারে নারজো ২০ নিয়ে এসেছিলো এবং বাজারে আসার কয়েক দিনের মধ্যেই তরুণদের মধ্যে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পায়। রিয়েলমি নারজো ২০ তে ছিল হেলিও জি৮৫ অকটা-কোর ৬৪ বিটস প্রসেসর, শক্তিশালী এআরএম মালি-জি ৫২ জিপিইউ ও ৬.৫-ইঞ্চি ডিসপ্লে যা চমকপ্রদ গেমিং পারফরমেন্স প্রদানও করেছে। তরুণ ব্যবহারকারিরা মন্তব্য করেছেন, নারজো ২০ দিয়ে তারা একনাগাড়ে পাবজি, কল অব ডিউটি, ফ্রি ফায়ার, অ্যাসফাল্ট নাইন-এর মতো হেভি গেইম দীর্ঘ সময়ের জন্য খেলতে পারছেন অনায়াসে। সেইসঙ্গে গেমিংয়ের সময় স্মার্টফোনের তাপমাত্রা মাত্রাতিরিক্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে না। যে কারণে গেমিং অভিজ্ঞতা হচ্ছে অত্যন্ত মনোমুগ্ধকর এক অভিজ্ঞতা।

রিয়েলমি বাংলাদেশে তাদের যাত্রা শুরু করে এন্ট্রি-লেভেলের সেরা সি সিরিজের স্মার্টফোন দিয়ে। সি সিরিজ মূলত রঙের বহিঃপ্রকাশ– এমন কিছু যা তরুণ প্রজন্মের সংবেদনশীল অনুভূতি, ব্যক্তিত্ব, আগ্রহ, সংস্কৃতি এবং এমনকি পছন্দকেও উপস্থাপন করে। অপরদিকে, নারজো সিরিজ গেমিং সক্ষমতাকে বিবেচনায় এনে বেঞ্চমার্ক সেট করেছে।

‘ডেয়ার টু লিপ’ স্পিরিটে অনুপ্রাণিত হয়ে ও বাংলাদেশের স্মার্টফোন ইকোসিস্টেমকে আরও প্রাণবন্ত করার লক্ষ্যেই রিয়েলমি কাজ করে চলেছে।

দেশের বাজারে শীর্ষ চার মোবাইল ব্র্যান্ডের ১-টি হিসেবে অবস্থান অর্জন করতে সমর্থ হয়েছে রিয়েলমি। ব্র্যান্ডটি নিয়ে আসছে একের পর এক দারুণ সব স্মার্ট ডিভাইস। এই ট্রেন্ডসেটের ধারা ২০২১ সালেও বজায় থাকবে ও এর মধ্যেদিয়ে তরুণদের জীবনে উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন নিয়ে আসার ব্যাপারেও রিয়েলমি বদ্ধপরিকর।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...