The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

শাকিব খান ঢাকায় এসে করোনার ভ্যাকসিন নিলেন

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিন নিলেন ঢালিউডের শীর্ষ তারকা শাকিব খান। সোমবার দুপুর ১ টার দিকে রাজধানীর ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব কিডনি ডিজিজেস অ্যান্ড ইউরোলজি হাসপাতালে গিয়ে টিকা গ্রহণ করেন।

শাকিব খান ঢাকায় এসে করোনার ভ্যাকসিন নিলেন 1

ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব কিডনি ডিজিজেস অ্যান্ড ইউরোলজি হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, শাকিব খান প্রায় ৩০ মিনিট হাসপাতালে ছিলেন। ভ্যাকসিন দেওয়ার পর তাকে ১৫ মিনিট পর্যবেক্ষণে রাখা হয়। তিনি হাসিমুখেই বাড়ি ফিরে গেছেন। যাওয়ার আগে জানিয়েছেন, তার কোনো সমস্যা নেই।

শাকিব খানের করোনার এটিইা প্রথম ভ্যাকসিন। জুনের প্রথম সপ্তাহ নাগাদ তাকে দ্বিতীয় ডোজ ভ্যাকসিন নিতে হবে।

হাসপাতালটির পরিচালক সংবাদ মাধ্যমকেজানিয়েছেন, শাকিব খানের পর কণ্ঠশিল্পী কোনালও এসেছিলেন। তিনিও টিকা গ্রহণ করেছেন।

করোনার ভ্যাকসিন নেওয়ার বিষয়ে শাকিব খান একটি সংবাদ মাধ্যমকে জানান, ভ্যাকসিন নেওয়ার জন্যে সোমবার সকালে পাবনা থেকে ঢাকায় এসেছেন। দুপুরে শেরেবাংলা নগর কিডনি হাসপাতালে গিয়ে ভ্যাকসিনটি গ্রহণ করেছেন।

শাকিব খান বলেন, আরও আগেই আমি ভ্যাকসিন নিতে চেয়েছিলাম। তবে লম্বা সময় শুটিংয়ে ঢাকার বাইরে ছিলাম সে কারণে নেওয়া হয়নি। শীঘ্রই আমাকে দেশের বাইরে যেতে হবে। এজন্য ভ্যাকসিন নেওয়াটা অপরিহার্য হয়ে পড়েছে।

তিনি আরও বলেন, করোনার টিকা নেওয়ার সময় মোটেও টের পাইনি। ভ্যাকসিনের অপেক্ষা করতে করতে কর্তব্যরত চিকিৎসক জানালেন ‘টিকা দেওয়া শেষ’! এতো সহজ! অবাকই হয়েছি। পরে হাসপাতালের পরিচালক মহোদয় কিছু সময় পর্যবেক্ষণে রেখেছিলেন। সবকিছুই স্বাভাবিক রয়েছে।

শাকিব খান বলেছেন, এতো চমৎকার পরিবেশ এবং এতো সহজভাবে করোনার ভ্যাকসিন নিতে পারবো, তা কখনও ভাবেনি। হাসপাতালের কর্মকর্তারা খুবই আন্তরিকতার সঙ্গে ভ্যাকসিন দেওয়ার কাজটি সেরেছেন। এজন্য তাদেরকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।

উল্লেখ্য, পাবনাতে ‘অন্তরাত্মা’ ছবির শুটিং করেন শাকিব খান। প্রায় দুই সপ্তাহের শুটিং শেষে ঢাকায় ফেরেন তিনি।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...