The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

আফগানিস্তান ছাড়ার আগে যুক্তরাষ্ট্র সাজ-সরঞ্জাম ধ্বংস করছে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ তালেবানের সঙ্গে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সম্পাদিত চুক্তি অনুযায়ী আফগানিস্তান থেকে চলে যাচ্ছেন মার্কিন সেনারা। এমনকি প্রক্রিয়াটি দ্রুত গতিতেই সম্পন্ন হচ্ছে। তবে আফগানিস্তান ছাড়ার আগে যুক্তরাষ্ট্র সাজ-সরঞ্জাম ধ্বংস করছে।

আফগানিস্তান ছাড়ার আগে যুক্তরাষ্ট্র সাজ-সরঞ্জাম ধ্বংস করছে 1

সামরিক পরিকল্পনাকারীদের বরাত দিয়ে মার্কিন গণমাধ্যম বলছে যে, ইতিমধ্যেই আফগানিস্তান হতে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রায় অর্ধেক সেনা উঠিয়ে নেওয়া হয়েছে।

মার্কিন কেন্দ্রীয় কমান্ড (সেন্টকম) জানিয়েছে যে, আফগানিস্তান হতে ৩০-৪৪ শতাংশ সেনা প্রত্যাহার ইতিমধ্যেই সম্পন্ন হয়েছে। ইতিমধ্যে আফগান নিরাপত্তা বাহিনীর কাছে ৬টি স্থাপনাও হস্তান্তর করা হয়েছে। সামনের দিনগুলোতে আরও বেশ কিছু ঘাঁটি হস্তান্তর করা হবে।

সেন্টকম এক বিবৃতিতে জানিয়েছে যে, আফগান জাতীয় প্রতিরক্ষা এবং নিরাপত্তা বাহিনী তাদের দেশকে স্থিতিশীল এবং নিরাপদ রাখার চেষ্টাও করছে। এক্ষেত্রে আগামী দিনগুলোতে আমরা এমন আরও বেশ কিছু ঘাঁটি এবং সামরিক সম্পদ তাদের কাছে হস্তান্তর করতে পারবো, সেগুলো তাদের কাজে সাহায্যও করতে পারে।

হালনাগাদ তথ্যের বরাত দিয়ে ভয়েস অব আমেরিকা বলেছে, আফগানিস্তান হতে মার্কিন সি-১৭ মডেলের ৩০০টি বিমানের সমান জিনিসপত্র সরাতে পেরেছে। এছাড়াও প্রায় ১৩ হাজার সাজ-সরঞ্জাম নষ্ট করে দেওয়া হচ্ছে।

গত সপ্তাহে সেন্টকম জানায় যে, আফগান থেকে সেনা প্রত্যাহারের প্রায় ২৫ শতাংশ সম্পন্ন হয়েছে। তবে মার্কিন আইন প্রণেতাদের সামনে সাক্ষ্য দেওয়ার সময় দেশটির প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন বলেন, সেনা প্রত্যাহারের গতি আরও ত্বরান্বিত করা হয়েছে।

আফগান ও মার্কিন কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে সংবাদ সংস্থাগুলো জানিয়েছে, আগামী ২০ দিনের মধ্যে বাগরাম বিমানঘাঁটি আফগান সরকারের কাছে হস্তান্তর করবে মার্কিন সেনা বাহিনী।

উল্লেখ্য, দীর্ঘ প্রায় ২০ বছর যাবত আফগানিস্তানে অবস্থান করছিল মার্কিন সৈন্যরা। এই সময় তারা যেসব সাজ-সরঞ্জাম ব্যবহার করেছে, সেগুলোর কিছু অংশ দেশে পাঠানোর পাশাপাশি বাকিগুলোও নষ্ট করে ফেলা হচ্ছে। খোদ মার্কিন গণমাধ্যম ভয়েস অব আমেরিকা এই খবর দিয়েছে।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...