The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

বৃষ্টির আশায় মেয়ে শিশুদের নগ্ন করে ঘোরানো হয় গ্রামে!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এমন বিস্ময়কর ঘটনা ঘটেছে ভারতের মধ্যপ্রদেশের দামোর জেলার একটি গ্রাম। সেখানে খরা পরিস্থিতি কাটিয়ে বৃষ্টির আশায় নগ্ন করে পুরো গ্রাম ঘোরানো হয়েছে অল্পবয়সী মেয়েদের!

বৃষ্টির আশায় মেয়ে শিশুদের নগ্ন করে ঘোরানো হয় গ্রামে! 1

সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা যায়, দীর্ঘদিন বৃষ্টি হচ্ছে না, গ্রামে বৃষ্টি আনতে, ভালো ফসল চাষের আশায় একটি অনুষ্ঠানে কমপক্ষে ৬টি মেয়েকে নগ্ন করে গ্রামে ঘোরানো হয়। গ্রামবাসীরা বিশ্বাস করেন যে, যে কারণে ভগবান তুষ্ট হবেন ও বৃষ্টি এনে খরা পরিস্থিতি থেকে তাদের স্বস্তি দেবেন।

মধ্যপ্রদেশের খরাপীড়িত ওই গ্রামটিতে সম্প্রতি এই ঘটনা ঘটেছে বলে সম্প্রতি বিবিসিসহ ভারতীয় গণমাধ্যমে উঠে এসেছে এমন বিস্ময়কর ঘটনার তথ্য।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়া ভিডিওগুলোতে বিবস্ত্র ওই মেয়ে শিশুদেরকে একটি কাঠের ভেলা কাঁধে তুলে হাঁটতে দেখা গেছে, সেই ভেলাতে বাঁধা ছিল একটি ব্যাঙ। স্থানীয়দের বিশ্বাস যে, এই আচার ‘বৃষ্টি দেবতা’কে তুষ্ট করবে ও ফলশ্রুতিতে ওই অঞ্চলে আবার বৃষ্টিপাত হবে।

ঘটনাটি জনসমক্ষে উঠে আসার পর নড়েচড়ে বসেছে ভারতের শিশু অধিকার রক্ষা বিষয়ক জাতীয় কমিশন। দামো জেলা কর্তৃপক্ষের কাছে ঘটনাটির বিষয়ে প্রতিবেদনও চাওয়া হয়েছে।

দামোর জেলার পুলিশ সুপার ডিআর তেনিয়ার জানিয়েছেন যে, বৃষ্টির আশায় স্থানীয় রীতি হিসেবে কয়েকজন কিশোরীকে নগ্ন করে ঘোরানোর খবর পুলিশের কানে এসেছে।

তিনি বলেন, তবে এই আচার অনুষ্ঠান নিয়ে আনুষ্ঠানিক কোনো অভিযোগ আসেনি। ওই মেয়েদের জোর করে বিবস্ত্র করা হয়েছে, এমন অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দামোর জেলা কালেক্টর এস কৃষ্ণ চৈতন্য জানিয়েছেন, শোভাযাত্রার সামনে থাকা ৬ মেয়ের বাবা-মা’রা তাদের সন্তানদের বিবস্ত্র করে শোভাযাত্রায় হাঁটানোর বিষয়ে সম্মতি দিয়েছিলেন, এমনকি তারা ওই শোভাযাত্রায় অংশও নেন।

শোভযাত্রায় অংশ নেওয়া এক নারী ভারতের সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে বলেছেন, আমরা বিশ্বাস করি এরকমটা করলে বৃষ্টি আসবেই।

শোভাযাত্রাটি গ্রামের প্রতিটি বাড়ির সামনে গিয়ে থামলে শিশুরা সেইসব বাড়ি থেকে খাদ্যশস্য সংগ্রহ করে; এসব খাদ্যশস্য পরে স্থানীয় একটি মন্দিরের কমিউনিটি কিচেনে দিয়ে দেওয়া হয়েছে।

তবে এমন কাণ্ড করার পর আদৌতে বৃষ্টি হয়েছে কি না তা অবশ্য সংবাদ মাধ্যমের খবরে উল্লেখ করা হয়নি।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের কাপড়ের মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...