স্ত্রীর পদধূলি নিয়ে ঘর থেকে বের হন যে মন্ত্রী!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এখনকার আমলেও এমন খবর সত্যিই চমৎকার। কারণ আমরা জানি স্বামীর পদধুলি নেন অনেক স্ত্রী। কিন্তু এবার শোনা গেলো স্ত্রীর পদধূলি নিয়ে ঘর থেকে বের হন এক মন্ত্রী।

wife & minister

এখনকার আমলেও এমন খবর সত্যিই চমৎকার। কারণ আমরা জানি স্বামীর পদধুলি নেন অনেক স্ত্রী। কিন্তু এবার শোনা গেলো স্ত্রীর পদধূলি নিয়ে ঘর থেকে বের হন এক মন্ত্রী। ঘটনাটি ভারতের। যে ভারত বর্তমান সময়ে ধর্ষণকাণ্ডে বিশ্বে শীর্ষস্থানে অবস্থান করছে। সেই ভারতেই আবার রয়েছে এমন পুরুষ যিনি নারীকে সম্মান করেন-ভক্তি করেন। নারীর প্রতি শ্রদ্ধার এমন এক অনন্য নজির স্থাপন করেছেন ভারতের এক মন্ত্রী। পুরুষতান্ত্রিক সনাতন সমাজব্যবস্থায় আচ্ছন্ন ভারতে তিনি প্রতিদিন পা ছুঁয়ে প্রণতি জানান। তিনি আর কেও নন ভারতের নারী ও শিশু উন্নয়ন মন্ত্রী সন্দীপ কুমার। এ খবরে হতবাক হয়েছেন অনেকেই।

সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, স্ত্রীর অপরিসীম ত্যাগের কারণেই রাজনৈতিক জীবনে তিনি দারুণ সফলতা পেয়েছেন বলে মনে করেন দিল্লির এই নারী ও শিশু উন্নয়ন মন্ত্রী সন্দীপ কুমার।

৩৪ বছর বয়সী মন্ত্রী সন্দীপ কুমার নারী দিবস উপলক্ষে আয়োজিত এক জনাকীর্ণ অনুষ্ঠানে বলেন, ‘স্ত্রী ঋতুর জন্যই তার এই উত্থান। এজন্য তিনি ঋতুর কাছে জীবনভর কৃতজ্ঞ থাকবেন।’

মন্ত্রী সন্দীপ আরও বলেন, ‘তার প্রতি আমি এটতাই কৃতজ্ঞ যে, ২০১১ সালের এপ্রিলে বিয়ের পর হতেই প্রতিদিন বাসা হতে বের হওয়ার সময় তার পদধূলি নিই। কদমবুচি করার সময় ঋতু অধিকাংশ সময়ই হাসে, আবার মাঝে মাঝে ‘সফল হও’ বলে আশীর্বাদও করে। আমাদের ভালোবাসা দেখে বন্ধুবান্ধবরাও মজা করে।’

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...