বিরল পাখি শিকারে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করেছে পাকিস্তান!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ বিরল প্রজাতির ‘হুবারা বাসটার্ড’ পাখি শিকারের ওপর নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করেছে পাকিস্তান। এই নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করেছে দেশটির সর্বোচ্চ আদালত।

Hubara basatarda Birds

সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা যায়, গত বছর এই ‘হুবারা বাসটার্ড’ পাখিটি শিকারের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিল পাকিস্তান সুপ্রিম কোর্ট।

খবরে বলা হয়, পাখিটির মাংসে নাকি যৌন উদ্দীপক শক্তি রয়েছে- এমন ধারণা শিকারিদের। মধ্যপ্রাচ্য ও উপসাগারীয় দেশগুলো হতে প্রতিবছর অনেক শিকারি এটা শিকারের জন্য পাকিস্তানে আসেন। পাখিটি শিকার নিষেধাজ্ঞা অব্যাহত থাকলে পাকিস্তানের বিভিন্ন অনুন্নত এলাকায় ওইসব দেশের বিনিয়োগ কমে যাবে ও মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোর সঙ্গে পাকিস্তানের সম্পর্ক খারাপ হতে পারে- এমন যুক্তি দেখিয়ে সুপ্রিম কোর্টের নিষেধাজ্ঞার ওই রায়কে চ্যালেঞ্জ করে পাকিস্তান সরকার।

পাকিস্তানের আভ্যন্তরীণ খাতে প্রধান বিনিয়োগকারী মূলত মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোই। এছাড়া পাকিস্তান হতে জনশক্তি রপ্তানিতেও শীর্ষে মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলেই। গত বছরের নিষেধাজ্ঞার পূর্বে পাখিটি শিকারে শিকারিদের জন্য বছরে ১০ দিন সময়সীমা ও সেই সঙ্গে এ সময়ের মধ্যে ১০০টি পাখি শিকারের পরিমাণ নির্ধারণ করে দিয়েছিল পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

Hubara basatarda Birds-2

অনেকটা মোরগের মতো দেখতে এই হুবারা পাখি। এক সময় আরব উপদ্বীপে এটি বিপুল পরিমাণে দেখা গেলেও বর্তমানে অস্তিত্ব সংকটে রয়েছে হুবারা পাখিটি।

প্রকৃতি রক্ষায় আন্তর্জাতিক সংগঠন ‘দ্য ইন্টারন্যাশনাল ইউনিয়ন অব দ্য কনজারভেশন অব ন্যাচার (আইইউসিএন)’ এর তথ্য মতে, বর্তমানে বিশ্বে ৫০ হাজার হতে ১ লাখের মতো হুবারা রয়েছে। অস্তিত্ব সংকটে রয়েছে- এমন প্রাণিদের তালিকায় এই পাখিটিকে রেখেছে ওই সংগঠনটি।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...