স্বামীর খোঁজে হেটে ১০০ কিলোমিটার পথ পাড়ি!

চীনের লি ওয়েনজু নামে ওই মহিলার স্বামীর নাম ওয়াং কুয়ানঝ্যাং

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ আজকাল এমনটি দেখা না গেলেও এক মহিলা স্বামীকে খুঁজতে খুঁজতে রীতিমতো ১০০ কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়েছেন!

সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা যায়, চীনের লি ওয়েনজু নামে ওই মহিলার স্বামীর নাম ওয়াং কুয়ানঝ্যাং। তিনি ছিলেন একজন আইনজীবী। পুলিশী নির্যাতনের বেশ কিছু মামলা তিনি চালাচ্ছিলেন। বিবিসিকে তিনি বলেছেন যে, তার স্বামীকে রাষ্ট্রীয় বাহিনী আটক করেছে তিন বছরেরও বেশি সময় পূর্বে। এরপর হতে তিনি তার কোনো খোঁজ পাচ্ছেন না। এমনকি তার স্বামী জীবিত রয়েছেন কি-না তাও তিনি নিশ্চিত নন।

ওই মহিলা ওয়েনজু জানতে চান, তার স্বামীর ভাগ্যে আসলে কী ঘটেছে। সে কারণে তার স্বামী ওয়াং কুয়ানঝ্যাং যেখান থেকে আটক হয়েছিলো সেই তিয়ানজিন শহর অভিমুখে বেইজিং হতে পদযাত্রা শুরু করেছেন তিনি। স্বামীর খবর পেতে এই যাত্রায় তার হাঁটার কথা রয়েছে অন্তত ১০০ কিলোমিটার।

জানা গেছে, ওয়াং ২০১৫ সালে দেশব্যাপী পরিচালিত এক অভিযানের সময় আরও অন্তত দুশো অধিকার কর্মীর সঙ্গে আটক হন। ওই অভিযানটি বিশেষভাবে পরিচিত হয়ে উঠেছিলো `৭০৯` অভিযান হিসেবে। কারণ জুলাইয়ের ৯ তারিখে সেটি শুরু হয়েছিলো। আর অভিযানে যারা আটক হয়েছিলো তাদের অনেককেই বড় অপরাধী হিসেবে চিত্রিত করার চেষ্টা করেছিলো চীনের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমও।

লি এখন তার ১২ দিনের পদযাত্রা করছেন কর্তৃপক্ষের ওপর চাপ তৈরির জন্য। যাতে করে তিনি জানতে পারেন যে, তার স্বামীর ক্ষেত্রে আসলে কী ঘটেছে। তার সন্দেহ যে, তার স্বামীকে নির্যাতনের শিকার হতে হয়েছে।

তিনি বলেছেন, কর্তৃপক্ষ আমাদের সব অধিকার কেড়ে নিয়েছেন। একজন নির্দোষ মানুষকে এভাবে আটক করা ও এক হাজার দিন ধরে বন্দী রাখা- আমি মনে করি এটি একটি চরমতম নিষ্ঠুরতা।

জানা যায়, লি এই পদযাত্রায় সঙ্গী হিসেবে পেয়েছেন আরও একজন নারীকে, যার স্বামীও ছিলেন একজন অধিকার কর্মী। তাকেও কারাদণ্ড দিয়েছিলো চীনা কর্তৃপক্ষ।

Advertisements
Loading...