এও কী সম্ভব? স্বামীর পাসপোর্টে বিমান ভ্রমণ করলেন এক ভারতীয় নারী!

স্বামীর পাসপোর্ট দেখিয়ে ইংল্যান্ড হতে ৪২০০ মাইল পথ পাড়ি দিয়ে ভারতে এসেছেন

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ আমরা সবাই জানি এক দেশ হতে আরেক দেশে যেতে হলে পাসপোর্ট লাগে। তবে একজনের পাসপোর্ট আরেক জন ব্যবহার করেন এমন কথা আগে কখনও শোনা যায়নি। স্বামীর পাসপোর্টে বিমান ভ্রমণ করলেন এক ভারতীয় নারী!

বিমানে করে একজন ভারতীয় নারী তাঁর স্বামীর পাসপোর্ট দেখিয়ে ইংল্যান্ড হতে ৪২০০ মাইল পথ পাড়ি দিয়ে ভারতে এসেছেন। অর্থাৎ ম্যানচেস্টার হতে দিল্লিতে পাড়ি জমিয়েছেন। এমন একটি ঘটনা কীভাবে ঘটলো, তা খতিয়ে দেখছে এমিরেটস এয়ারলাইনস কর্তৃপক্ষ।

সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়, ওই নারীর আত্মীয়রা বলেছেন, ব্যবসায়িক কাজে যাওয়ার সময় ভুলবশত ২৩ এপ্রিল স্বামীর পাসপোর্ট নিয়ে যান তিনি।

খবরে বলা হয়েছে, গীতা মোধা নামে ওই নারী এমিরেটস এয়ারলাইনসের বিমানে করে যুক্তরাজ্যের ম্যানচেস্টার হতে ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লিতে পৌঁছেন। তবে সবচেয়ে আশ্চর্যের বিষয় হলো তিনি স্বামীর পাসপোর্ট দেখিয়ে নির্বিঘ্নে নয়াদিল্লি পৌঁছেছেন। বিমানবন্দরে ও বিমানে চেক ইন করার সময়ও বিষয়টি কেনো ধরা পড়েনি তা বোধগম্য নয়। দিল্লিতে পৌঁছানোর পর ৫৫ বছর বয়সী ওই নারী বুঝতে পারেন তিনি স্বামীর পাসপোর্টেই এসেছেন!

ওই ভ্রমণকারী নারী গীতা মোধা ভারতীয় বংশোদ্ভূত যুক্তরাজ্যের নাগরিক। তিনি ব্যবসায়িক কাজে ম্যানচেস্টার হতে দিল্লি আসার সময় ভুলে স্বামী দিলীপের পাসপোর্ট সঙ্গে নেন।

এই ঘটনার পর এমিরেটস এয়ারলাইনস ইতিমধ্যেই দুঃখ প্রকাশ করেছে। বিমান কর্তৃপক্ষ বলেছে যে, এক্ষেত্রে তারা স্বাভাবিক মান অনুসরণ করেননি। বিমান কর্তৃপক্ষ তদন্ত করে দেখছে, কীভাবে একজন নারী তাঁর স্বামীর পাসপোর্ট দেখিয়ে ৪,২০০ মাইল পথ পাড়ি দিতে পারলেন।

গীতা মোধার নিকট আত্মীয় বলেছেন, দিল্লি পৌঁছানোর পর ইমিগ্রেশন ফরম পূরণের সময় তিনি তাঁর ভুলটি বুঝতে পারেন। পরে তাঁকে ভারতে ঢুকতে দেয়নি ইমিগ্রেশন। পরের ফ্লাইটে তাঁকে দুবাইতে ফেরত পাঠানো হয়। দুবাইতে প্রায় এক রাত বিমানবন্দরেই থাকেন গীতা। পরে এয়ারলাইনসের কাছে তাঁর নিজের পাসপোর্ট যাওয়ার পরই দিল্লি যাওয়ার অনুমতি পান গীতা।

ওই আত্মীয় আরও বলেছেন, বিষয়টি অত্যন্ত দুঃখজনক। গীতা খুবই উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েন। প্রথমে চেক ইনের সময় বিষয়টি ধরা পড়লে তাঁর নিজের পাসপোর্ট আনিয়ে নেওয়ার মতো অনেক সময় তাঁর হাতে ছিল। তবে এমন সময় ব্যাপারটি ধরা পড়ে, তখন তাঁর আর কিছুই করার ছিল না।

এমিরেটসের একজন মুখপাত্র বলেছেন, এই ঘটনার জন্য গীতা মোধার কাছে আমরা দুঃখ প্রকাশ করেছি।

এমিরেটসের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে যে, নির্ধারিত সময়ের ৩ ঘণ্টা আগে গীতা মোধা বিমানবন্দরে পৌঁছেছিলেন। ম্যানচেস্টার বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ বলেছে, বিষয়টি ধরার দায়িত্ব ছিল এয়ারলাইনস কর্তৃপক্ষের। বিষয়টিকে বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে তাঁরা এখন এটি নিয়ে বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষের সঙ্গে একযোগে কাজ করছেন বলে উল্লেখ করা হয়।

Advertisements
Loading...