মিউজিয়ামে ছবি তোলা নিষিদ্ধ কেনো? জেনে নিন

বেশির ভাগ মিউজিয়ামগুলোতে থাকে মহামূল্যবান ছবি

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ আমাদের অনেকেরই জানা আছে অধিকাংশ মিউজিয়ামে ছবি তোলা নিষিদ্ধ। কিন্তু কেনো? সে বিষয়টি অনেকেরই জানা নেই। আজ বিষয়টি জেনে নিন।

বর্তমান সময়ে প্রায় সব কিছুই ক্যামেরায় ধরে রাখতে চায় মানুষ। কোথাও বেড়াতে গেলে সঙ্গে ক্যামেরা থাকাটা যেনো একেবারেই সাধারণ ব্যাপারে পরিণত হয়েছে। তবে বর্তমানে মোবাইলে ক্যামেরা তো রীতিমতো বিপ্লব ঘটিয়ে দিয়েছে। ছবি তোলার এমন ইচ্ছা থাকলেও বিশ্বে বেশির ভাগ মিউজিয়ামের ভিতরে আপনি ক্যামেরা নিয়ে ঢুকতেই পারবে না। কিন্তু কেনো তা কী আপনি জানেন?

দেখা যায় পেশাদার আলোকচিত্রীরা ছবি তোলার জন্য অনেক সময় যা খুশি সিদ্ধান্ত নেন। যে কারণে মিউজিয়ামের সামগ্রীর নানা ক্ষতিও হতে পারে। তাই বিশেষ অনুমতি ব্যতিত বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই মিউজিয়ামে পেশাদার আলোকচিত্রীদের ক্যামেরা নিয়ে প্রবেশ করতে দেওয়া হয় না। যে কারণে সাধারণ মানুষকেও ক্যামেরা নিয়ে ঢুকতে দেওয়া হয় না।

তাছাড়া বেশির ভাগ মিউজিয়ামগুলোতে থাকে মহামূল্যবান ছবি। আবার ক্যামেরার ফ্লাশে আলো বেশ ‘ইনটেন্স’। ছবি তুলতে দিলে ছবির সামনে ছবি দেখার থেকে তোলার জন্য ভিড় বাড়বে। সেক্ষেত্রে ছবি নষ্ট হওয়ার সম্ভাবনা থেকে যায়। সে কারণেও ছবি তুলতে দেওয়া হয় না। কোনও কোনও ক্ষেত্রে বিশেষ অনুমতি দেওয়া হয় তবে সেটি কদাচিত ঘটে।

আরেকটি কারণ হলো, ক্যামেরা ও ফটোগ্রাফ যতো কমবে, দর্শকদের অভিজ্ঞতা ততোই সমৃদ্ধ হবে, এমনটিই বলেছেন মিউজিয়াম বিশেষজ্ঞরা।

তাছাড়া মিউজিয়ামে গিয়ে ছবি তুলে তা শেযার করলে, মিউজিয়ামে যাওয়ার আগ্রহও অনেক কমে যাবে বলে মনে করেন বেশির ভাগ মিউজিয়াম কর্তৃপক্ষ- সেটিও একটি কারণ।

আমরা জানি কোনও কোনও ক্ষেত্রে আগ্রহ তৈরি করে থাকে ডিজিট্যাল মাধ্যম। তবে এতে শিল্পের মান কমে যেতে পারে বলে মনে করছেন অনেক শিল্প রসিক। সেই কারণেই হয়তো ছবি তোলায় নিষেধাজ্ঞা থাকে অনেক ক্ষেত্রেই।

আমরা অনেকেই জানি যে কোনও শিল্পের ক্ষেত্রে কপিরাইট একটা বড় ব্যাপার। তাই বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই ছবি বা ভাস্কর্যের ক্ষেত্রে ছবি তোলা যায় নিষিদ্ধ। যেমন সিনেমা হলে প্রবেশ করে ছবি বা ভিডিও তোলাতেও বিধিনিষেধ থাকে।

Advertisements
Loading...