The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

পায়ের পাতার ছবি বিক্রি করে তিনি মাসে আয় করেন সাড়ে ৩ লাখ টাকা!

আমেরিকার অ্যারিজোনার বাসিন্দা হলেন জেসন স্ট্রম

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ করোনার এমন পরিস্থিতিতে জনৈক মার্কিন নাগরিক মাসে প্রায় সাড়ে ৩ লাখ টাকা রোজগার করছেন শুধুমাত্র নিজের পায়ের পাতার ছবির বিক্রি করে!

পায়ের পাতার ছবি বিক্রি করে তিনি মাসে আয় করেন সাড়ে ৩ লাখ টাকা! 1

ঘটনাটি শুনতে অবাক লাগলেও সত্যি। ওই ব্যক্তি একটি ওয়েবসাইটে পায়ের ছবি দিয়েই প্রতিমাসে এতো টাকা পাচ্ছেন!

আমেরিকার অ্যারিজোনার বাসিন্দা হলেন জেসন স্ট্রম। ৩৫ বছর বয়সী জেসনের পায়ের পাতার ছবি কিনে থাকেন পুরুষ-নারী উভয়েই। আর ঠিক এভাবেই প্রতি মাসে ৪ হাজার ডলার আয় করেন জেসন। অর্থাৎ বাংলাদেশী টাকায় যার পরিমাণ হলো ৩ লাখ ৪০ হাজার টাকা। জেসনের নিজস্ব ইনস্টাগ্রাম পেজও রয়েছে। তাতে ফলোয়ারের সংখ্যা হলো প্রায় ৫০ হাজার।

পৃথিবীতে প্রতিটি মানুষের কিছু না কিছুর প্রতি তীব্র আকর্ষণ থাকে। তেমনই এমন অনেক মানুষ রয়েছেন যারা অন্যের পায়ের পাতার ছবির প্রতিও আকৃষ্ট হন। হঠাৎ করে একদিন অর্থ উপার্জনের জন্য এই পদ্ধতিটি খুঁজে নিলেন জেসন। তারপর থেকে নিজেই নিজের পায়ের পাতার ছবি তুলতে তোলেন এবং তা ভালো দামে বিক্রিও হতে থাকে।

আয় বাড়ানোর জন্য জেসন স্ট্রম ‘only fans’ নামে একটি ওয়েবসাইটের সহযোগিতা নেন। সেটির মাধ্যমে সরাসরি নিজের গ্রাহকদের ছবি পাঠান জেসন স্ট্রম। এই ওয়েবসাইটে সাবস্ক্রিপশন নিতে হতে প্রতি মাসেই গ্রাহককে দিতে হয় ৭.৯৯ ডলার।

এ সম্পর্কে জেসনের মন্তব্য হলো, ‘যেহেতু এই সব ছবি বিনা পয়সায় কিংবা অনলাইনে বিনামূল্যে পাওয়া যাবে না, তাই সবাই ওয়েবসাইট হতেই ছবিগুলো কেনেন। এজন্য আমি টাকাও পাচ্ছি। আমি নিজেও ঠিক একইভাবে পায়ের পাতার প্রতি আকৃষ্ট হয়ে পড়ি। তাই ওদের ব্যাপারটা বুঝতে আমার কোনই অসুবিধা হয় না।’

এই খবরটি জনসমক্ষে উঠে আসতেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে রীতিমতো হইচই পড়ে যায়।‌

তথ্যসূত্র: রিপাবলিক ওয়ার্ল্ড অবলম্বনে একুশে টেলিভিশন

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...