The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

নীতা আম্বানির ফোনের দাম ৩১৫ কোটি টাকা!

ভারতের সবচেয়ে ধণী ব্যবসায়ী মুকেশ আম্বানীর স্ত্রী নীতা আম্বানি

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ একটি ফোনের দাম কতো হতে পারে তা শুনলে আপনিও আশ্চর্য হবেন। ভারতের সবচেয়ে ধণী ব্যবসায়ী মুকেশ আম্বানীর স্ত্রী নীতা আম্বানির ফোনের দাম নাকি ৩১৫ কোটি টাকা! আসলেও কী তাই?

নীতা আম্বানির ফোনের দাম ৩১৫ কোটি টাকা! 1

এমন একটি খবর বর্তমান সময়ের এই সোশ্যাল মিডিয়ার যুগে ভাইরাল হবে সেটিই স্বাভাবিক। হয়েছেও তাই। ভারতের সবচেয়ে ধণী ব্যবসায়ী মুকেশ আম্বানীর স্ত্রী নীতা আম্বানির ফোনের দাম নাকি ৩১৫ কোটি টাকা! এমন খবর সোস্যাল মিডিয়ায় আসার পর সেটি ভাইরাল হয়ে গেছে। খবর আসার পর মুহূর্তেই তা এক টাইমলাইন হতে ছড়িয়ে পড়ে অন্য টাইমলাইনে। ক’দিন পূর্বেই এই খবরটি বেশ শোরগোল ফেলে দিয়েছে নেট দুনিয়ায়।

ভারতের সবচেয়ে ধনী ব্যবসায়ী মুকেশ আম্বানীর স্ত্রী নীতা আম্বানি যে স্মার্টফোনটি ব্যবহার করেন, সেটির দাম নাকি ৩১৫ কোটি টাকা। এমনও খবরও প্রকাশ পায়, নীতা অম্বানির ওই স্মার্টফোনটি হলো, ফ্যালকন সুপারনোভা আইফোন ৬।

ওই ফোনের ব্যাক কভারে রয়েছে একটি বড় মাপের গোলাপি হিরে বসানো, যার জন্যই ফোনের দাম এমন আকাশছোঁয়া হয়েছে। কিন্তু তিনি কী আসলেও এটি ব্যবহার করেন? তথ্য জানতে গিয়ে বেরিয়ে এসেছে চাঞ্চল্যকর তথ্য!

সর্বভারতীয় প্রচারমাধ্যম সূত্রের বরাত দিয়ে সংবাদ মাধ্যমের খবরে জানা গেছে, ফ্যালকন নামে একটি ব্র্যান্ড অ্যাপেল-এর সঙ্গে গাঁটছড়া বেঁধে এই আইফোনটি প্রস্তুত করা হয়, যার পিছনে প্রমাণ সাইজের একটি হিরেও থাকে। ২৪ ক্যারেট সোনা বা প্ল্যাটিনামে তৈরি করা হয় এই ব্যাক কভারটি।

এর দাম পড়ে প্রায় ৪৮.৫ মিলিয়ন ডলার। তবে বর্তমানে এই ফোনের বিক্রি বন্ধ রেখেছে ওই সংস্থা। তবে অবাক করার মতো আসল সত্যি হলো যে, মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের মালিক নীতা অম্বানি নাকি এই ফোন ব্যবহার করেন না।

আম্বানি পরিবারের এক সদস্য এই খবর দিয়েছে এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে। এই খবর নাকি সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন বলেই দাবি করেছেন তিনি। জিও কর্ণধারের স্ত্রী-এর ব্যবহৃত ফোনটিও যথেষ্টই দামি হলেও নীতা অাম্বানি কোন ব্র্যান্ডের ফোন ব্যবহার করেন সে বিষয়ে আম্বানি পরিবারের ওই সদস্য কিছুই উল্লেখ করেননি।

Loading...