The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

গুগলকে আবারও জরিমানা গুনতে হচ্ছে ৫ বিলিয়ন ডলার!

অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপের অপব্যবহারের দায়ে গুগলকে ৫ বিলিয়ন ডলার জরিমানা করেছে ইইউ

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ গুগলকে জরিমানা স্বরুপ আবারও গুনতে হচ্ছে ৫ বিলিয়ন ডলার। প্রযুক্তিকে এগিয়ে নেওয়ায় সবচেয়ে বড় ভূমিকা রয়েছে গুগলের। তবে তাদের কিছু ভুলত্রুতি এবং আইন বিরোধী কার্যকলাপের কারণে মাঝে মাঝেই তাদের বিভিন্ন আইনী ঝামেলা এবং জরিমানার শিকার হতে হয়। আবারো অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপের অপব্যবহারের দায়ে ওয়েব জায়ান্ট গুগলকে পাঁচ বিলিয়ন ডলার জরিমানা করেছেন ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) কর্মকর্তারা।

গুগলকে আবারও জরিমানা গুনতে হচ্ছে ৫ বিলিয়ন ডলার! 1

এদিকে গত ১৭ জুলাই ইইউ কমপিটিশন কমিশনার মারগ্রেথ ভেস্টেগার সম্ভাব্য জরিমানার ব্যাপারে গুগলকে জানাতে গুগলের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সুন্দার পিচাইকে ফোন করেছিলেন। গত বুধবার বেলজিয়ামের ব্রাসেলসে অ্যান্টি ট্রাস্ট মামলায় গুগলকে রেকর্ড পরিমাণ এ জরিমানা করা হয়। ইইউ এর আগে ২০১৭ সালে গুগলকে তাদের শপিং সার্চ সেবা নিয়ে করা এক মামলায় গুগলকে ২৪০ কোটি ইউরো জরিমানা করেছিল। তবে এই জরিমানা ইইউ’র ইতিহাসের সকল জরিমানার রেকর্ড ছাড়িয়ে গেছে।

গুগলের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে, গুগল তাদের অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেমের মাধ্যমে ব্যবহারকারীদের গুগলের সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহার করতে বাধ্য করছে। ইইউ বলেছে, এটি তাদের অ্যান্টি ট্রাস্ট আইনের বিরোধী। ইউরোপীয় ইউনিয়ন কম্পিটিশন কমিশনার মার্গারেট ভেস্তাগার এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, “গুগল বিভিন্ন ফোন প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠানগুলোকে তাদের অ্যান্ড্রয়েড ইকোসিস্টেমে শুধুমাত্র গুগলের অ্যাপ রাখার জন্য চাপ দিচ্ছিল। এটা নীতি বিরুদ্ধ কাজ।” তিনি আরোও বলেন, “ব্যবহারকারীদের অবশ্যই নিজেদের পছন্দ বেছে নেবার অধিকার রয়েছে।”

তবে গুগলের বিরুদ্ধে করা এই অভিযোগ সম্পুর্ণ অস্বীকার করে গুগলের এক মুখপাত্র ‘আল ভার্নে’ বলেন, “প্রত্যেক অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপস ব্যবহারকারীদের নিজেদের ইচ্ছে মত বেছে নেয়ার সুযোগ দেন তারা। এছাড়া তিনি আরও জানান, “কমিশনের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল করা হবে।”

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...