পাকিস্তানে নতুন সরকার: সন্ত্রাস বন্ধ না হলে আলোচনা নয় নীতিতেই অনড় থাকতে চাই ভারত

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব নেওয়ার আগে দেশবাসীর প্রতি বক্তৃতায় ইমরান খান তার ভবিষ্যৎ কর্মসূচির রূপরেখা দিয়েছেন

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ পাকিস্তানে নতুন সরকার গঠন হওয়ার আগেই ভারত পর্যবেক্ষণ মন্তব্য করেছে। সন্ত্রাস বন্ধ না হলে আলোচনা নয় নীতিতেই অনড় থাকতে চাই ভারত।

সন্ত্রাস বন্ধ না হলে পাকিস্তানের সঙ্গে আলোচনা নয়, এমন নীতিতেই অনড় থাকতে চাই ভারত। দেশটির আনন্দবাজারপত্রিকার এক খবরে এমন কথা বলা হয়েছে।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব নেওয়ার আগে দেশবাসীর প্রতি বক্তৃতায় ইমরান খান তার ভবিষ্যৎ কর্মসূচির যে রূপরেখা দিয়েছেন, তাতে তিনি বলেছেন যে- ভারতের সঙ্গে কাশ্মীর নিয়ে কথা বলতে চান, আলোচনায় সমাধানও খুঁজতে চান। কাশ্মীর ও বেলুচিস্তান নিয়ে পারস্পরিক দোষারোপের পালা বন্ধ করতে চান তিনি। দুই দেশের মধ্যে ব্যবসা-বাণিজ্যও বাড়াতে চান। এতেকরে ভারত সম্পর্কে ‘প্রত্যাশিত’ কথাগুলোই বলেছেন বলে মনে করা হচ্ছে।

সেদিকে নজর রাখলেও বিষয়টি নিয়ে এখনই মুখ খুলছে না ভারত সরকার। সন্ত্রাস বন্ধ না হলে আলোচনা নয়, এ অবস্থানেই এখন পর্যন্ত অনড় ভারত।

ইমরান খানের বক্তৃতায় ভারতের প্রসঙ্গে সন্ত্রাস শব্দটি সেভাবে মুখে শোনা যায়নি। প্রতিবেশীদের সঙ্গে সম্ভাব্য নীতি নিয়ে বলতে শুরু করে চীন, আফগানিস্তান, ইরান, সৌদি আরব নিয়ে বলা শেষ করে হিন্দুস্তান নিয়ে মুখ খোলেন তিনি।

কাশ্মীরের মানবাধিকার লঙ্ঘনের কথাও তুললেন। তবে সন্ত্রাস নিয়ে সরাসরি একটি শব্দও নয়; শুধু দাবি করলেন- ভারত একতরফা পাকিস্তানকে দোষারোপ করে আসছে। তবু ভারতের সঙ্গে আলোচনার জানালা খোলার চেষ্টা যে করবেন, সে কথা বলেছেন ইমরান খান।

তবে নরেন্দ্র মোদি সরকার এখনই অত্যুৎসাহ দেখাতে রাজি নয় মোটেও। কারণ তাদের কাছে এটি স্পষ্ট যে- ইমরান মুখে যাই বলুন না কেনো, চলবেন সেই সেনা-আইএসআই নির্দেশিত পথেই।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...