The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

ব্রেইনকে সচল রাখতে আমাদের যা করতে হবে

মস্তিষ্ককে সঠিকভাবে কাজে লাগাতে হলে আমাদের উচিৎ মস্তিষ্ককে সচল রাখা

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মানব মস্তিষ্ক একটি জটিল প্রক্রিয়া। তবে এই জটিল প্রক্রিয়া ব্যবহার করেই মানুষ ইচ্ছে মত মস্তিষ্ককে পরিচালনা করছে বিভিন্ন কাজে। মস্তিষ্ককে সঠিকভাবে কাজে লাগাতে হলে আমাদের উচিৎ মস্তিষ্ককে সচল রাখা। আজ আমরা জানবো কিভাবে আমাদের মস্তিষ্ককে সচল রাখা যায়।

ব্রেইনকে সচল রাখতে আমাদের যা করতে হবে 1

১। নিয়মিত নৃত্য করুনঃ নাচ আমাদের মস্তিষ্ককে সচল রাখতে যথেষ্ট সাহায্য করে। প্রতিদিন কিছু সময় নৃত্য করলে স্বাভাবিকভাবেই আমাদের মস্তিষ্কের কার্যক্ষমতা বেড়ে যায়। আমেরিকার নিউ ইয়র্ক সিটিতে অবস্থিত আলবার্ট আইনস্টাইন কলেজের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নৃত্য আমাদের মস্তিষ্কে অক্সিজেন এবং শক্তি সরবরাহ করে।

২। বাড়ির ছোট -খাটো কাজ করুনঃ বাসার অনেক কাজ আমরা চাইলেই অবসর সময়ে করতে পারি। এই ধরুন বাগান করা, ঘর গুছিয়ে রাখা ইত্যাদি। এই কাজগুলো আমাদের মস্তিষ্ককে সর্বদা সচল থাকতে সাহায্য করে।

৩। নতুন কিছু করুনঃ যে কাজ করতে আপনার মস্তিষ্ক সক্রিয় নয়, এমন কোন কাজ শুরু করুন তাহলে আপনার মস্তিষ্ক অনেক সক্রিয় থাকবে।

৪। কিছু সময় হাসুনঃ মস্তিষ্কে অক্সিজেন সরবরাহ করতে দিনে কিছু সময় হাসা খুবই জরুরী। হাসলে যেমন মন ভাল থাকে, ঠিক তেমনি আমাদের মস্তিষ্কও সচল থাকে। অ্যামেরিকার ক্যালিফোর্নিয়ার লোমা লিন্ডা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক সমীক্ষায় উঠে এসেছে প্রতিদিন কিছু সময় হাসলে তা কোন কিছু শিখতে এবং মনে রাখার জন্য মস্তিষ্কের ক্ষমতা শতকরা ৩৮ ভাগ বেড়ে যায়।

৫। মাছ খাওয়াঃ সপ্তাহে দু একদিন মাছ খাওয়া স্বাস্থের জন্য খুবই ভাল। মাছ খেলে মস্তিষ্কের আইকিউ ক্ষমতা বৃদ্ধি পায় এবং মস্তিষ্ক পর্যাপ্ত সময় সচল থাকে।

৬। অচেনা কোন রোডে গাড়ি চালানঃ সাধারণত আমরা যে রাস্তায় নিয়মিত চলাচল করি সেই রাস্তায় যাওয়ার সময় আমাদের মস্তিষ্ক তেমন সক্রিয় থাকে না। তবে নতুন কোন রোডে গাড়ি চালালে মস্তিষ্কের কোষগুলো সক্রিয় হয়ে ওঠে এবং সচল থাকে।

৭। কফি পান করাঃ নিয়মিত ৩ কাপ কফি পান করলে স্বভাবিকের তুলনায় মস্তিষ্কের কার্যক্ষমতা অনেকটা বৃদ্ধি পায়। সেই সাথে মস্তিষ্ক তার কার্য সম্পাদনে সচল থাকে।

৮। রান্নায় পর্যাপ্ত হলুদ ব্যবহারঃ হলুদ মস্তিষ্ককে যেকোন ধরণের সংক্রামক রোগ থেকে রক্ষা করে। তাই মস্তিষ্ককে সচল রাখতে এবং স্বরণ শক্তি বৃদ্ধি করতে নিয়মিত রান্নায় হলুদ ব্যবহার করুন।

৯। সজিব শাক-পাতাঃ নিয়মিত সজিব শাক-পাতা খেলে মস্তিষ্ক সচল থাকে এবং এর কার্যক্ষমতা বৃদ্ধি পায়। কারণ শাক-পাতায় প্রচুর পরিমানে ভিটামিন এবং খনিজ রয়েছে যা আমাদের স্বাস্থের জন্য খুবই জরুরী।

১০। স্বাভাবিক নিয়ম ভেঙ্গে নতুন কিছু করুনঃ প্রতিদিনের বিভিন্ন স্বাভাবিক কাজগুলো একটু ভিন্ন ভাবে করতে চেষ্টা করুন। তাহলে মস্তিষ্ক আরো সচল হয়ে উঠবে।

এছাড়া ব্যায়াম করা তো সবার জন্য আবশ্যক। সকালে ব্যায়াম করলে সারাদিন আমাদের শরীর এবং মস্তিষ্ক সচল থাকে।

Loading...