The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

সাত বছর আগেই এক ব্যক্তি লিখেছিলেন ‘Corona virus…..its coming.’!

ট্যুইটটি করা হয় ২০১৩ সালে

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ‘করোনা ভাইরাস… আসছে’, এমন কথা নাকি এক ব্যক্তি লিখেছিলেন সাত বছর আগেই! এখন নতুন করে তার সেই কথা উঠে এসেছে সংবাদ মাধ্যম। করোনা আক্রান্তের সংখ্যা চীনে কমলেও, ক্রমেই একাধিক দেশে ছড়িয়ে পড়ছে এই প্রাণঘাতি ভাইরাসটি। ভারতেও আক্রান্তের সংখ্যা ৮০ পেরিয়ে গেছে। বাংলাদেশে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ জন। ইন্টারনেট জুড়ে সতর্কবার্তা ছড়ানো হচ্ছে সব সময়। এরমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় উঠে এলো একটা মজার জিনিস।

সাত বছর আগেই এক ব্যক্তি লিখেছিলেন ‘Corona virus…..its coming.’! 1

‘করোনা ভাইরাস… আসছে’, এমন কথা নাকি এক ব্যক্তি লিখেছিলেন সাত বছর আগেই! এখন নতুন করে তার সেই কথা উঠে এসেছে সংবাদ মাধ্যম। করোনা আক্রান্তের সংখ্যা চীনে কমলেও, ক্রমেই একাধিক দেশে ছড়িয়ে পড়ছে এই প্রাণঘাতি ভাইরাসটি। ভারতেও আক্রান্তের সংখ্যা ৮০ পেরিয়ে গেছে। ইন্টারনেট জুড়ে সতর্কবার্তা ছড়ানো হচ্ছে সব সময়। বাংলাদেশে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ জন। এরমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় উঠে এলো একটা মজার জিনিস।

এক ব্যক্তি বছর সাতেক আগেই নাকি বলেছিলেন ‘করোনা আসছে।’ শুনতে আজব লাগলেও এটাই নাকি সত্যি। ট্যুইটটি করা হয় ২০১৩ সালে। আজ ২০২০ সালে ছড়িয়ে পড়ছে সেই ভাইরাসটি। সত্যিই অবাক হয়ে যাচ্ছেন অনেকেই। আচমকা ভাইরাল হয়ে গিয়েছে সেই ট্যুইটটিও।

Marco নামে এক ব্যক্তির ট্যুইটার হ্যান্ডেল হতে ট্যুইট করা হয়। তাতে লেখা ছিল Corona virus…..its coming. কীভাবে তিনি এমন সম্ভাবনার কথা বললেন, সেটা অবশ্য এখনও স্পষ্ট নয়।

কেও কেও বলেছেন, ‘মার্কো আমরা কী সবাই মরে যাবো?’ আবার কেও বলেছেন, ‘আপনি কী ট্যুইটার হ্যাক করে তারিখটি বদলে দিয়েছেন?’ কোথা থেকে এমন আজব ট্যুইটের উদ্ভব হলো, তা সত্যিই ভাববার বিষয়।

ভারতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা শুক্রবার বেড়ে দাঁড়ায় ৮১। নাগপুরে আরও দু’জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার কর্ণাটকে ৭৬ বছরের এক বৃদ্ধের মৃত্যু ঘটেছে। মোট সংখ্যা ৮১ এই ভাইরাসে আক্রান্ত এমনটিই জানিয়েছে ভারতের স্বাস্থ্যমন্ত্রক।

যে ৮১ জন আক্রান্ত হয়েছেন তাদের মধ্যে ৬৪ জন ভারতীয় এবং ১৬ জন ইতালিয়ান ও একজন ক্যানাডিয়ান। কালাবুরগির যে ব্যক্তির মৃত্যু ঘটেছে তিনি কিছুদিন পূর্বেই সৌদি আরব হতে ফিরেছিলেন। ওই ব্যক্তিকে পরীক্ষা করলে তার শরীরে কোভিড ১৯ ভাইরাসটি ধরা পড়ে এমনটিই জানিয়েছেন কর্ণাটকের স্বাস্থ্যমন্ত্রী। দিল্লিতে এ পর্যন্ত ৬ জনের মধ্যে করোনা ভাইরাস পসিটিভ প্রমানিত হয়, পাশাপাশি উত্তরপ্রদেশে এখনও অবধি ১০ জনের মধ্যে করোনা ভাইরাস পসিটিভ প্রমাণিত হয়েছে বলে সংবাদ মাধ্যম সূত্রে জানা যায়।

Loading...