The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

এবার নেপালি প্রধানমন্ত্রীর অযোধ্যাপুরীতে রামের মূর্তি স্থাপনের নির্দেশ!

মাদি পৌরসভার প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক শেষে সেখানে রামের মূর্তি নির্মাণের কথা বলেছেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী কেপি শর্মা ওলি

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ রামের জন্মস্থান ভারতের অযোধ্যায় নয়, নেপালের চিতওয়ানের মাদি পৌরসভা এলাকার অযোধ্যাপুরীতে বলে দাবি করেছেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী কেপি শর্মা ওলি।

এবার নেপালি প্রধানমন্ত্রীর অযোধ্যাপুরীতে রামের মূর্তি স্থাপনের নির্দেশ! 1

মাদি পৌরসভার প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক শেষে সেখানে রামের মূর্তি নির্মাণের কথা বলেছেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী কেপি শর্মা ওলি। এ ছাড়াও প্রতিনিধিদের পরামর্শ দেন অযোধ্যাপুরীতে রামের জন্ম সেটি প্রচার করতে।

রবিবার নেপালের দ্য হিমালয়া টাইমস এক খবরে জানিয়েছে, প্রতিনিধি দলের এক সদস্য জানিয়েছেন যে, প্রধানমন্ত্রী বলেছেন আমার কাছে যেসব প্রমাণ রয়েছে সেগুলো নির্দেশ করে যে নেপালের অযোধ্যাপুরীতেই রামের জন্ম হয়েছে।

ওলি প্রতিনিধি দলকে অযোধ্যাপুরীকে স্থানীয়দের মধ্যে তুলে ধরতে এবং ঐতিহাসিক নিদর্শন সংরক্ষণ করার পরামর্শও দিয়েছেন। সুবেদি নামে মাদি পৌরসভার ৯ নং ওয়ার্ডের চেয়ার বলেন, আমরাও বিশ্বাস করি যে চিতওয়ানের অযোধ্যাপুরী থেকে পারসার থরি এলাকার বাল্মিকি আশ্রমে রামের জন্ম হয়েছিলো।

ন্যাশনাল এসেম্বলির সদস্য দিল কুমার রাওয়াল জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী অযোধ্যাপুরীর আশেপাশের এলাকা সংরক্ষণের নির্দেশও দিয়েছেন। প্রতিনিধি দলকে প্রধানমন্ত্রী আরও প্রমাণ সংগ্রহের জন্য খনন কাজও শুরু করতে বলেছেন।

তাদের এই অযোধ্যাপুরীকে ঐতিহাসিক ও ধর্মীয় স্থান হিসেবে গড়ে তুলতে সরকার ভূমি প্রদান করবে বলেও জানিয়েছেন নেপালি প্রধানমন্ত্রী। এছাড়াও রাম, লক্ষ্মণ ও সীতার মূর্তি স্থাপনের নির্দেশও দিয়েছেন তিনি।

প্রতিনিধি দলের পক্ষ হতে নেপালের প্রধানমন্ত্রীকে বলা হয়, তারা মাদি পৌরসভার নাম পরিবর্তন করে অযোধ্যাপুরী রাখার চেষ্টাও করবেন। এতে করে স্থানটির ধর্মীয় গুরুত্ব আরও বাড়বে।

মাত্র কয়েকদিন আগে আসল অযোধ্যা ও রামের জন্মভূমি নেপাল বলে দাবি করেছিলেন ওলি। এরপরই দেশের মধ্যে ও বাইরে প্রবলভাবে সমালোচিতও হন তিনি। ভারতের ক্ষমতাসীন ভারতীয় জনতা পার্টি তার দাবি প্রত্যাখ্যান করে একটি বিবৃতিও দেয়। সম্প্রতি উত্তর প্রদেশের অযোধ্যায় ঐতিহাসিক বাবরি মসজিদের স্থলে রাম মন্দির নির্মাণের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ভারতের আদালত সেখানে রাম মন্দির নির্মাণের আদেশ দেয়।

উল্লেখ্য, এবার নেপালী প্রধানমন্ত্রীর এই দাবির পর নতুন করে বিতর্ক সৃষ্টি হলো ভারতের অযোধ্যায় ঐতিহাসিক মসজিদ ভাঙ্গা নিয়ে। কয়েক শত বছর পূর্বের ঐতিহাসিক বাবরী মসজিদটির স্থলে কোনো মন্দির বা সেটি রামের জন্মস্থান নয় সেটি ভারতের মুসলমানসহ সমগ্র মুসলিমরা দাবি করে আসছেন দীর্ঘদিন ধরে। তাদের সেই দাবি এখন আরও জোরালো হলো।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...