The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

বয়স আটকে রাখবেন কীভাবে? জেনে নিন টিপস

মুখের বলিরেখার অস্তিত্ব, চুলে পাক ধরাসহ অনেক লক্ষণ দেখা যায় অনেকের ভেতর

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গেই শারীরিক পরিবর্তনও আসে। বয়সের ছাপ প্রথম পড়ে মুখমণ্ডলের ত্বকে। এরপর পুরো শরীরের ত্বকে লক্ষণ দেখা যায়। তাহলে বয়স আটকে রাখবেন কীভাবে? আজ জেনে নিন কিছু টিপস।

মুখের বলিরেখার অস্তিত্ব, চুলে পাক ধরাসহ অনেক লক্ষণ দেখা যায় অনেকের ভেতর। তবে এতে আপনার মন খারাপের কারণ হতে পারে।

আমাদের চারপাশে তাকালে দেখা যায় যে, বয়সের তুলনায় বয়ষ্কই লাগে। আবার কাও কাওকে বয়সের তুলনায় দেখতে কম বয়সও মনে হয়। যাদের দেখে বয়স নির্ধারণ করা কঠিন হয়, মূলত তারা স্বাস্থ্যের প্রতি সচেতন। তারা নিয়মিতভাবেই কিছু নিয়ম-কানুন মেনে চলেন।

আজ জেনে নিন বয়স থামিয়ে রাখার কয়েকটি টিপস:

প্রতিদিন পর্যাপ্ত পানি পান

পানি পানের ক্ষেত্রে যদি আপনি কখনও অবহেলা করেন তাহলে আপনার সুস্থ এবং সুন্দর থাকা সম্ভব হবে না। সুস্থতার জন্য আপনাকে প্রতিদিন পর্যাপ্ত পরিমাণ পানি পান করা ভীষণ জরুরি একটি বিষয়। শারীরিক যে কোনো সমস্যা দূরে রাখতে অনেকটাই সাহায্য করে বিশুদ্ধ পানি। প্রতিদিন পর্যাপ্ত পানি পান করলে সেটি শরীরে পানির ঘাটতি মেটানোর পাশাপাশি শরীরের জমে থাকা বিষাক্ত উপাদান কিংবা টক্সিন দূর করতেও সাহায্য করে। শরীর আর্দ্র থাকলে সুস্থ থাকা সহজ হবে। ত্বক আর্দ্র থাকলে টানটান ভাবও বজায় থাকে। এই টানটান ভাবটি কমে গেলেই দেখা দেয় বলিরেখা। তাই বয়স ধরে রাখতে হলে নিয়মিতভাবে পানি পান করতে হবে। প্রতিদিন ন্যূনপক্ষে ২ লিটার পানি পান করুন।

সঠিক খাদ্যাভ্যাস

ত্বকের প্রয়োজনীয় সকল নিউট্রিয়েন্টস আমরা সাধারণত খাবার থেকেই পাই। প্রতিদিনের ডায়েটে তাই এন্টিঅক্সিডেন্টস সমৃদ্ধ সবুজ শাকসবজি এবং ফলমূল রাখতে হবে।

নিয়মিত শরীরচর্চা করুন

নিয়মিতভাবে শরীরচর্চা করলে তা শরীরকে ভেতর থেকে আরও ভালো রাখে। শরীরে কখনও কোনো রকম মেদ জমতে দেবেন না। কারণ মেদ নানা অসুখের কারণ হতে পারে। নিয়মিত শরীরচর্চা করলে শরীরে রক্ত চলাচলও বাড়ে, শরীরের সব কোষে অক্সিজেন পৌঁছায় সঠিকভাবে। যে কারণে ত্বক আরও উজ্জ্বল হয়।

নির্বিঘ্ন ঘুম পাড়া

মানুষের শরীর সুস্থ রাখার জন্য প্রতিদিন নির্বিঘ্ন ঘুম দরকার পড়ে। একজন প্রাপ্তবয়ষ্ক মানুষের জন্য প্রতিদিন অন্তত ৭ হতে ৮ ঘণ্টা ঘুম প্রয়োজন। ঘুমের অন্তত ঘণ্টা দুই পূর্বে স্মার্টফোন হতে দূরে থাকুন। কম্পিউটার বা স্মার্টফোনের নীলচে আলো আমাদের ত্বকের জন্য বেশ ক্ষতিকর। এটি ত্বকে দ্রুত বয়সের ছাপ ফেলতে সক্ষম। অনেকেই বালিশের উপর মুখ উপুড় করে ঘুমানোর অভ্যাস গড়ে তোলেন। এতে করেও দেখা দিতে পারে বলিরেখা। এই ভঙ্গিতে ঘুমানোর অভ্যাস থাকলে তা থেকে বিরত থাকুন।

পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখা

ত্বকের বিভিন্ন স্তরে ময়লা এবং পলিউশনের আস্তরণ পড়ে যায়। নিয়মিতভাবে এক্সফলিয়েশন এবং ক্লিনজিং করলে ত্বকের সুস্বাস্থ্য বজায় থাকে।

সঠিক অভ্যাস গড়ে তুললে আপনি যেমন সুস্থ্য জীবন যাপন করতে পারবেন তেমনি বয়সও আপনাকে কাবু করতে পারবে না।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...