The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

ইডকলের সৌরবিদ্যুৎ: গ্রামের মানুষদের ভাগ্যের দুয়ার খুলে দিয়েছে

দি ঢাকা টাইমস্‌ ডেস্ক ॥ ইনফ্রাস্ট্রাকচার ডেভেলপমেন্ট কোম্পানি লিমিটেড (ইডকল) এর সৌরবিদ্যুৎ গ্রামের মানুষদের ভাগ্যের দুয়ার খুলে দিয়েছে। যেসব গ্রামের মানুষ কখনও ভাবতে পারিনি- তারা কোন দিন বিদ্যুতের আলো দেখতে পাবে, আজ তারা আধুনিক যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে পারবে। তারা বিদ্যুৎ সুবিধা ভোগ করতে পারবে। এটা বাংলাদেশের সেই সব গ্রামের মানুষদের জন্য এক বড় পাওয়া। বাংলাদেশের অনেক গ্রামই এখনও রয়েছে অন্ধকারের মধ্যে। না পায় বিদ্যুতের আলো, না পায় কোন চিকিৎসা- তারা মৌলিক অনেক চাহিদা থেকেই বঞ্চিত। সরকারের সংশ্লিষ্ট এই প্রতিষ্ঠানটির নিরলস প্রচেষ্টায় গ্রামের মানুষ আশার আলো দেখছে।

ইডকলের সৌরবিদ্যুৎ: গ্রামের মানুষদের ভাগ্যের দুয়ার খুলে দিয়েছে 1

প্রসঙ্গক্রমে উল্লেখ্য যে, সারাদেশে নতুন ১০ লাখ সোলার হোম সিস্টেম এবং ২০ হাজার বায়োগ্যাস প্ল্যান্ট স্থাপন করতে আর্থিক সহায়তা দেবে রাষ্ট্রায়ত্ত প্রতিষ্ঠান ইনফ্রাস্ট্রাকচার ডেভেলপমেন্ট কোম্পানি লিমিটেড (ইডকল)। ১৮ ফেব্রুয়ারি চট্টগ্রামের সন্দ্বীপ উপজেলায় নতুন এ কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হবে । করা খবর দৈনিক ইত্তেফাকের।

ইডকলের নির্বাহী পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ইসলাম শরীফ সাংবাদিকদের জানান, সরকার ২০০৩ সাল থেকে বিদ্যুৎ ও গ্যাস সংযোগবিহীন এলাকায় সৌরবিদ্যুৎ কর্মসূচির আওতায় সোলার হোম সিস্টেম এবং ২০০৬ সাল থেকে জাতীয় গার্হস্থ্য বায়োগ্যাস ও জৈব সার কর্মসূচির আওতায় বায়োগ্যাস প্ল্যান্ট স্থাপন শুরু করে। এসব এলাকায় এ পর্যন্ত প্রায় ৬৫ মেগাওয়াট উৎপাদন ক্ষমতার ১২ লাখ ৩০ হাজার সোলার হোম সিস্টেম স্থাপন করা হয়েছে। তিনি আরও বলেন, গ্রামাঞ্চলে প্রায় ৬০ লাখ লোক এই ব্যবস্থায় বিদ্যুৎ সুবিধা পাচ্ছে, যা মোট জনসংখ্যার ৪.০১ শতাংশ।
নতুন করে যে ১০ হাজার সোলার হোম সিস্টেম সারাদেশে স্থাপন করা হবে, সেগুলোর মোট উৎপাদন ক্ষমতা হবে ৫০ মেগাওয়াটের মতো। আর এ কাজ শেষ হবে আগামী দুই বছরের মধ্যে। এতে গ্রামাঞ্চলে প্রায় ৫০ লাখ লোক বিদ্যুৎ সুবিধা পাবে বলে জানানো হয়। পর্যায়ক্রমে আরও অনেক গ্রাম ইডকলের আওতায় এনে বিদ্যুৎ সুবিধা প্রদান করা যাবে বলে অভিজ্ঞ মহলের ধারণা।

Loading...