নিশ্চিত চুল গজাবে ক্যাস্টর অয়েল ব্যবহারে!

দি ঢাকা টাইমস্‌ ডেস্ক ॥ আমাদের অতিরিক্ত দুশ্চিন্তা, অপর্যাপ্ত ঘুম, অতিরিক্ত কাজের চাপ, অসুস্থতা, বংশগত সমস্যা, পরিবেশের প্রভাবসহ নানা কারণে পড়ে যেতে পারে চুল। আর এসব সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে ক্যাস্টর অয়েল।


TIL-Hair-Care-System

গবেষকরা বলছেন, ক্যাস্টর অয়েলে রয়েছে ভিটামিন ই, মিনারেলস, প্রোটিন, এসেন্সিয়াল ফ্যাটি এসিড যা চুল পড়া রোধ করার সঙ্গে সঙ্গে নতুন চুল গজাতেও সাহায্য করে। এটি চুলের যাবতীয় সমস্যা দূর করে চুলের সুন্দর স্বাস্থ্য ফিরিয়ে আনে।

কিভাবে ব্যবহার করবেন-

  • ক্যাস্টর অয়েল খুব ঘণ হওয়ায় অন্য যেকোনো তেলের (অলিভ অয়েল, কোকোনাট অয়েল, আমন্ড অয়েল) সঙ্গে মিশিয়ে চুলে লাগিয়ে সারারাত রেখে দিন। এত সময় চুলে তেল লাগিয়ে রাখা ঝামেলা মনে করলে কমপক্ষে ২ ঘণ্টা লাগিয়ে রাখুন। এরপর শ্যাম্পু দিয়ে চুল ভালোমতো পরিষ্কার করে ধুয়ে ফেলুন।
  • এছাড়া আপনি যদি চোখের পাপড়ি ভ্রু ঘন করতে চান তবে ক্যাস্টর অয়েল ব্যবহার করতে পারেন। প্রতি রাতে ঘুমানোর আগে কটন বাড্স বা তুলার সাহায্যে ব্রু বা পাপড়িতে লাগিয়ে সকালে ধুয়ে ফেলুন।
  • এছাড়া ১চা চামচ মধু, ২চা চামচ ক্যাস্টর অয়েল এবং ১টি ডিম ভালো মতো মিশিয়ে চুলে লাগিয়ে ১ঘণ্টা পর শ্যাম্পু করে ধুয়ে ফেলুন। এটি আপনার নিষ্প্রাণ এবং রুক্ষ চুলের উজ্জলতা বাড়িয়ে দেবে।
  • ১ চামচ পরিমাণ ক্যাস্টর অয়েল, ১ চামচ তিলের তেল এবং ১ চামচ অলিভ অয়েল ভালো মতো মিশিয়ে চুলে এবং স্ক্যাল্পে লাগিয়ে গরম তোয়ালে দিয়ে ৩০মিনিট পেচিয়ে রাখুন। এরপর শ্যাম্পু করে ফেলুন।

সাবধানতা: ক্যাস্টর অয়েলের সঙ্গে অন্য কোনো তেল মেশাতে না চাইলে শুধু স্ক্যাল্পে লাগাবেন। কারণ ক্যাস্টর অয়েল খুব ঘন হওয়ায় এটি পুরো চুলে লাগালে পরে উঠানো নিয়ে বিপাকে পড়তে হবে।

আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...