১০০ বছর আগে ডুবে যাওয়া শিশু ভেসে উঠলো!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এমন একটি ছবি দেখলে যে কেও বলতেই পারেন ঘটনাটি সত্যি। কিন্তু আসলেও কি তাই? ১০০ বছর আগে ডুবে যাওয়া শিশুকি কখনও ভেসে উঠতে পারে? এমনই একটি ছবি সে দাবি করছে।

100 years ago drowning child

অস্ট্রেলিয়ার ক্যুইন্সল্যান্ডের শিশুদের সঙ্গে (মোট ৫ জন) স্নান করতে নেমেছিল এক দম্পতি। তাদের স্নানের দৃশ্য তুলে রাখার জন্য ফোটোও তুলে রাখা হয়। কিন্তু ছবি তোলার পরে দেখা যায় ওই শিশুসহ দম্পতির পাশে এক বালিকার অস্পষ্ট মুখ দেখা যাচ্ছে।

ওই ছবি দেখে অনেকে বলেন, ১০০ বছর আগে এক বালিকা এখানেই ডুবে মারা গিয়েছিল। অনেকে বলেন, ছবিতে ওটা বালকের ‘ভূতের’ ছবি। ওই ছবি ফেসবুকে আপলোডের সঙ্গে সঙ্গেই শুরু হয়ে যায় তোলপাড় পাড়। সংবাদ মাধ্যমেও খবর হতে থাকে বিষয়টি নিয়ে। ছবির আবির্ভূত হওয়া ওটি আসলে কে? ওটিই কি সেই ১০০ বছর আগের ডুবে যাওয়া মেয়েটি? নানা প্রশ্ন মানুষের মনে আসতে থাকে। তবে বিশেষজ্ঞরা এটিকে মানতে নারাজ। তারা এটিকে আজগুবি খবর বলেই অভিহিত করেছেন এবং বলছেন, ‘ভূত’টুত নয় ছবি তোলার সময় কোনও কারণে একটা স্পট চলে এসেছিল।

উল্লেখ্য, ১৯১৫ সালে অস্ট্রেলিয়ার ক্যুইন্সল্যান্ডের হেলিডনের মারফিস হোলে ডুবে মরে যায় ১৩ বছরের এক বালিকা। ‘১০০ বছর পর সেই পুকুরেই ধরা পড়লো তার ছবি’- অনেকেই এমন মনে করেন।

Advertisements
Loading...