মেমরি কার্ড যত্নে রাখতে যা করবেন

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মোবাইলে বা ক্যামেরাতে আমরা ব্যবহার করি মেমরি কার্ড। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে এটি ভাইরাসসহ নানা সমস্যা দেখা দিচ্ছে। তাই এই মেমরি কার্ড যত্নে রাখতে করণীয় জেনে নিন।

Memory cards & care

মোবাইল ফোন কিংবা ক্যামেরাতে মেমরি কার্ড ব্যবহার করা হয়ে থাকে। এটি দিয়ে ছবি তোলা গান শোনা, গেম খেলা থেকে শুরু করে সব কাজই করা হয়। আবার নানা ধরনের ডাটা আদান-প্রদানের কাজেও ব্যবহার হয়ে থাকে। এক কথায় বিনোদনের উপকরণ বোঝাই করতে মোবাইলে চাই ভালো ধারণক্ষমতার মেমরি কার্ড। আর তাই সেটি অবশ্যই যত্নে রাখতে হবে।

Memory cards & care-2

মেমরি কার্ড সম্পর্কে যা জানা দরকার:

এক. একটানা বেশি সময় মোবাইলফোনে গান শোনা, ভিডিও দেখা অথবা গেম খেলা হতে বিরত থাকুন। এতে কেবল মেমোরি কার্ড এমনকি আপনারও হতে পারে শারীরিক নানা সমস্যা।

দুই. মেমোরি কার্ড ফরম্যাট করার প্রয়োজন পড়লে কখনও কম্পিউটারে ফরম্যাট করবেন না। মোবাইলেই সেরে ফেলুন স্মৃতি খালি করার এই কাজটি।

তিন. আমরা মেমোরি কার্ডকে অনেক সময় পেনড্রাইভ হিসেবেও ব্যবহার করে থাকি। এতে মেমোরি কার্ডে ভাইরাস ও অন্যান্য সমস্যার সম্ভাবনা থেকে যায়। তাই এসব কাজ হতে বিরত থাকুন। যদি অগত্যা পেনড্রাইভ হিসেবে ব্যবহার করতেই হয়, তবে কার্ড রিডার ব্যবহার না করে মোবাইলের ডাটাকেবল ব্যবহার করুন।

পাঁচ. মেমোরি কার্ড ভালো রাখার জন্য আপনার মোবাইলটি যতটুকু পরিমাণ মেমোরি কার্ড সমর্থন করে, ঠিক তার অর্ধেক ধারণক্ষমতার মেমোরি কার্ড ব্যবহার করুন। আর তাতে অর্ধেক পরিমাণ ডাটা রাখুন। যদি আপনার মোবাইল ফোনসেটে ৩২ গিগাবাইট পর্যন্ত মেমোরি সাপোর্ট করে তাহলে ১৬ গিগাবাইট মেমোরি কার্ড ব্যবহার করুন। আর এতে ৮ গিগাবাইট ডাটা রাখুন।

ছয়. অন্ততপক্ষে প্রতি ৩ মাস পর পর একবার হলেও আপনার মেমোরি কার্ডের বসানোর জায়গাটি গ্লাস ক্লিনার দিয়ে পরিষ্কার করুন। এর কারণ হলো ধুলোবালি কিংবা গরমে ঘেমেও মেমোরি কার্ড নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

সাত. আর নকল মেমোরি কার্ড ব্যবহার থেকে বিরত থাকুন। এতে করে আপনার সাধের মোবাইল ফোনটির স্থায়ী ক্ষতিও হতে পারে। মনে রাখবেন বাজারে পাওয়া বেশির ভাগ নকল মেমোরি কার্ডগুলো জীর্ণ অথবা পুরনো বাক্সে প্যাকেটজাত হয়ে থাকে। তাই এগুলো কেনার সময় আপনাকে সাবধান হতে হবে। ব্র্যান্ডেড কোম্পানির ওয়ারেন্টিযুক্ত মেমরি কার্ড ব্যবহার করুন।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...