মানুষের স্মৃতি সংরক্ষণ করা যাবে মাইক্রোচিপে!

দি ঢাকা টাইমস্‌ ডেস্ক ॥ মানুষের স্মৃতিশক্তি সংরক্ষণ করে রাখার কৃত্রিম পদ্ধতি উদ্ভাবনের দাবি করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের গবেষকেরা। তাঁরা জানান মানুষের স্মৃতিশক্তি সংরক্ষণ করা হবে মাইক্রোচিপে। আগামী দুই বছরের মধ্যেই স্মৃতিশক্তি হারানো মানুষের স্মৃতি ফিরিয়ে আনতে এই মাইক্রোচিপ ব্যবহারে সফলতা আসবে বলে গবেষকেরা আশা করছেন।

human-brain

সম্প্রতি এক প্রতিবেদনে এ সিএনএন জানায় সাউদার্ন ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ও ওয়েক ফরেস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকেরা এক দশকেরও বেশি সময় ধরে মানুষের স্মৃতিশক্তি সংরক্ষণের পদ্ধতি নিয়ে গবেষণা করছেন।

প্রতিবেদনে হলা হয় মানুষের মস্তিষ্কের ‘হিপ্পোক্যাম্পাস’ নামের নির্দিষ্ট অঞ্চলে দীর্ঘস্থায়ী স্মৃতি সংরক্ষিত থাকে। স্মৃতি কীভাবে গঠিত হয় সে বিষয়টি নিয়ে করা গবেষণায় সফল হয়েছেন তাঁরা। গবেষকেরা আশা করছেন, মস্তিষ্কে আঘাত, মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ, আলঝেইমার রোগীদের স্মৃতি ফিরিয়ে দিতে সক্ষম হবে তাঁদের তৈরি মাইক্রোচিপ।

এর মধ্যে ইঁদুর ও বানরের ক্ষেত্রে সিলিকন নির্মিত মাইক্রোচিপ ব্যবহার করে স্মৃতিশক্তি উদ্ধারে সফল হয়েছেন গবেষকেরা। মস্তিষ্কের নির্দিষ্ট অঞ্চল যেভাবে স্মৃতি জমা রাখে এ মাইক্রোচিপও ঠিক সেভাবেই স্মৃতি জমা করে রাখে, এবং বৈদ্যুতিক তরঙ্গের মাধ্যমে মস্তিষ্ককে উদ্দীপিত করতে পারে। গবেষকেরা স্মৃতিশক্তি ধরে রাখার যন্ত্র উদ্ভাবনে আরও গবেষণা চালিয়ে যাবেন বলেই সিএনএনকে জানিয়েছেন

স্নায়ুবিদ ও গবেষক ট্রেড বার্গার এ প্রসঙ্গে বলেন, “হয়তো প্রত্যেক স্মৃতিভ্রষ্ট মানুষের ব্যক্তিগত স্মৃতিকে পুনরায় মস্তিষ্কে ফিরিয়ে দিতে পারব না আমরা; কিন্তু স্মৃতি তৈরির সক্ষমতা ফিরিয়ে দিতে পারব।“

সূত্রঃ সিএনএন ও প্রথম আলো।

Advertisements
Loading...