সেই ‘তরকারিওয়ালী’র পরিচয় মিলেছে!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ পিঠে করে টমেটোর ঝুলি বহন করা সেই তরুণীর সন্ধান মিলেছে। সম্প্রতি ওই তরুণীর ছবি ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়ে। আর সঙ্গে সঙ্গেই তা ভাইরাল হয়ে যায়।

young-matched-curry-vendor-identity

ইন্টারনেটে ছবিটি ছড়িয়ে পড়ার পর সবার প্রশংসা পেতে থাকেন। তবে এই তরকারিওয়ালী’র পরিচয় সে সময় জানা যায়নি।

অবশেষে ওই তরুণীর পরিচয় মিলেছে। তরুণীটির নাম কুসুম শ্রেষ্ঠা। বয়স ১৬। কুসুম কাঠমাণ্ডু হতে ১৬০ কি.মি. দূরে অবস্থিত ওয়াংলিং, গোরখার বাসিন্দা। সে নোয়েস্ট মডেল কলেজের একাদশ শ্রেণীর ছাত্রী। তার বাবার নাম চন্দ্র নারায়ণ শ্রেষ্ঠা এবং মায়ের নাম গ্যানু শ্রেষ্ঠা। এই পরিবারটি কৃষি পেশার সঙ্গে সম্পৃক্ত।

young-matched-curry-vendor-identity-2

ওই তরুণীর ছবিগুলো তোলা হয়েছে দাশিন/থিহার পর্যটন এলাকা হতে। সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়েছিলে, টমেটো বিক্রির মাধ্যমে কুসুম তার পরিবারকে সাহায্য করছিলো। তার ছবিগুলো ভাইরাল হওয়ার খবরটি তিনি তার বন্ধুদের নিকট হতে পান। তাকে নিয়ে নেপাল, ভারত, পাকিস্তান, বাংলাদেশসহ মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোতেও সংবাদ হয়েছে। বিষয়টিতে তিনি খুবই খুশি হয়েছেন। তবে তিনি তার কোনো ছবি ইন্টারনেটে দিতে রাজি নন। এমনকি মডেলিংয়েও তার কোনো রকম আগ্রহ নেই। তবে মেয়েটি নাকি পুরো বিষয়টি নিয়ে বেশ দ্বিধায় পড়েছেন।

young-matched-curry-vendor-identity-3

ফটোগ্রাফার রূপচন্দ্র মাহারজান জানিয়েছেন, তিনি বন্ধুদের সঙ্গে ঘুরছিলেন। তখন তিনি কুসুমকে দেখেন ও ছবি তোলেন। তবে তিনি জানতেন না ছবিটি এভাবে ভাইরাল হবে। পরবর্তীতে হঠাৎ তিনি খেয়াল করেন ফেসবুকে ওই ছবিটি ভাইরাল হয়ে গেছে। এরপর অবশ্য তিনি তার পোস্টটি মুছে ফেলেন। তবে ততোক্ষণে তা ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়ে।

উল্লেখ্য, “অনলাইনে ভাইরাল এই ‘‌সবজিওয়ালি’‌র ছবি!” শিরোনামে এ সংক্রান্ত একটি সংবাদ সম্প্রতি দি ঢাকা টাইমস্ এও প্রকাশিত হয়।

Advertisements
Loading...