নারীর দেহে ১৩২ পাউন্ড ওজনের টিউমার!

ওভারির এপিথেলাল কোষে এই টিউমারটি বেড়ে ওঠেছিলো

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ যা সচরাচর কখনও দেখা যায় না এমন এক বিশাল আকারের টিউমার অপসারণ করা হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের কানেকটিকাটে এক নারীর দেহ থেকে। অপসারণ করা টিউমারটির ওজন ১৩২ পাউন্ড!

এই টিউমার উদ্ধারের পর চিকিৎসকরা হতভম্ব হয়ে গেছেন। তারা বলেছেন, এমন বিশাল আকৃতির টিউমার তারা আগে কখনও দেখেন নি। ওই নারীর ওভারিতে এই ক্যান্সার টিউমারটির সংক্রমণ হয়।

কার্নিকাটের ডানবেরী হসপিটালে দীর্ঘ ৫ ঘন্টা অস্ত্রোপচার করে এই টিউমার অপসারণ করেন। এই অপারেশনে অংশ নেন ১২ জন সার্জন। এক প্রতিবেদনে সিএনএন এই তথ্য দিয়েছে। তবে টিউমার আক্রান্ত ওই নারীর পরিচয় প্রকাশ করেনি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

অস্ত্রোপচারে অংশ নেওয়া সার্জন ডা. ভ্যান আন্দিকিয়ান জানিয়েছেন, “ওই নারীর বাম ওভারি হতে এই টিউমারটি বেড়ে ওঠে। আমরা অস্ত্রোপচার করে বিশাল টিউমারটি অপসারণ করেছি। টিউমার আক্রান্ত টিস্যুগুলোও আমরা সরিয়ে ফেলি”।

তিনি আরও জানিয়েছেন, ওভারির এপিথেলাল কোষে এই টিউমারটি বেড়ে ওঠেছিলো। এর মধ্যে গেলাটিন নামক এক ধরণের উপাদান পায় চিকিৎসকরা। গত নভেম্বরে ওই নারীর দেহে টিউমারটি সনাক্ত করা হয় ফেব্রুয়ারিতে অপারেশন করা হয়। প্রতি সপ্তাহে গড়ে ১০ পাউন্ড করে ওজন বাড়তে থাকে টিউমারটির। টিউমারটির কারণে স্বাভাবিকভাবে হাঁটতে বা খাবার খেতে পারতেন না ৩৮ বছর বয়সী ওই নারী।

অস্ত্রোপচারের সময়ের বর্ণনা দিয়ে চিকিৎসক আরও বলেন, “আমি যখন প্রথমবার প্রি-অপারেশন রুমে গেলাম তখন দেখলাম এই রোগীর চোখে প্রচণ্ড ভয় ও আশঙ্কা কাজ করছে। ৩০০ পাউন্ড ওজনের এই রোগীর দেহে ৩৯ ইঞ্চির এক বিশাল টিউমার অবস্থান করছিল। তিনিতো জীবনের আশা প্রায় ছেড়েই দিয়েছিলেন”।

উল্লেখ্য, ১৯৯১ সালে যুক্তরাষ্ট্রের স্ট্যানফোর্ড হাসপাতালে ৩০৩ পাউন্ড ওজনের একটি টিউমার অপসারণ করা হয়। সেটিই ছিলো পৃথিবীতে অপসারণ করা সবচেয়ে বড় টিউমার। অপরদিকে এবার এই মহিলার অপসারণ করা টিউমারটি ওজনের দিক হতে পৃথিবীর শীর্ষ ১০ বা ২০ এর তালিকায় থাকা টিউমার হতে পারে বলে ধারণা করছেন চিকিৎসকরা।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...