The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

ইরানের তেল রফতানি হবেই কেও ঠেকাতে পারবে না: ইরানের সর্বোচ্চ নেতা

ইরানের তেল কেনার ক্ষেত্রে ৮টি দেশকে দেওয়া মার্কিন ছাড়ের মেয়াদ নবায়ন করা হবে না বলে ওয়াশিংটন ঘোষণা করার পর তিনি এমন কথা বললেন

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহিল উজমা খামেনেয়ী বলেছেন যে, মার্কিন নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও ইরান তার ইচ্ছা অনুযায়ী যতোটুকু প্রয়োজন ততোটুকু জ্বালানি তেল রফতানি করবে।

ইরানের তেল রফতানি হবেই কেও ঠেকাতে পারবে না: ইরানের সর্বোচ্চ নেতা 1

ইরানের সর্বোচ্চ নেতা জোর দিয়ে বলেছেন, আমেরিকা কিছুই করতে পারবে না। সম্প্রতি রাজধানী তেহরানে শ্রমিকদের এক সমাবেশে তিনি এই কথা বলেন।

ইরানের তেল কেনার ক্ষেত্রে ৮টি দেশকে দেওয়া মার্কিন ছাড়ের মেয়াদ নবায়ন করা হবে না বলে ওয়াশিংটন ঘোষণা করার পর তিনি এমন কথা বললেন।

ইরানের সর্বোচ্চ নেতা বলেন, শত্রুদের বিদ্বেষী আচরণের বিষয়ে ইরানি জাতি কখনও নীরব থাকবে না এবং শত্রুরা এর জবাবও পাবে। মার্কিন সরকার চায় যে ইরানিরা তাদের অন্যায়ের কাছে মাথানত করুক। তবে তাদের এই ইচ্ছা কখনই পূরণ হবে না।

আয়াতুল্লাহিল উজমা খামেনেয়ি আরও বলেন, অর্থনৈতিক চাপ সৃষ্টির মাধ্যমে তারা অশুভ লক্ষ্য হাসিল করতে চান। শত্রুরা ভাবছে যে তারা আমাদের পথ বন্ধ করে দিতে পেরেছে। তবে আমাদের তেজস্বী ইরানি জাতি ও বিচক্ষণ সরকার এই পরিস্থিতি মোকাবেলা করতে সক্ষম হবে।

একইসঙ্গে আয়াতুল্লাহিল উজমা খামেনেয়ি জ্বালানি তেল খাতের ওপর নির্ভরতা কমাতে সমন্বিত পদক্ষেপ গ্রহণেরও আহ্বান জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য, মার্কিন সরকার গত বছরের নভেম্বরে ইরানের ওপর কঠোর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করলেও ৮টি দেশকে ইরান থেকে তেল কেনার ক্ষেত্রে ৬ মাসের জন্য ছাড় দিয়েছে।

সম্প্রতি হোয়াইট হাউজ ঘোষণা করেছে যে, আগামী ২ মে ৬ মাসের সে মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ার পর সেটি আর নবায়ন করা হবে না। অর্থাৎ আমেরিকার দৃষ্টিতে এখন থেকে বিশ্বের কোনো দেশই আর ইরানের কাছ থেকে তেল আমদানি করতে পারবে না।

Loading...