The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

দেড় ডজন ঈদের নাটকে দেখা যাবে ফারজানা রিক্তাকে

করোনার ভয় জয় করে জমে উঠেছে এবারের ঈদে নাটকপাড়া

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ গত রোজার ঈদের শুটিং বন্ধ থাকলেও এই কোরবানীর ঈদে আবারও শুটিং শুরু হয়েছে। অভিনেত্রী ফারজানা রিক্তা দেড় ডজন ঈদের নাটকে অভিনয় করলেন।

দেড় ডজন ঈদের নাটকে দেখা যাবে ফারজানা রিক্তাকে 1

করোনার ভয় জয় করে জমে উঠেছে এবারের ঈদে নাটকপাড়া। কোরবানি ঈদ সামনে রেখেই বেড়েছে নাটক-টেলিছবির শুটিং। ক্যামেরার সামনে ফিরেছেন অনেক নামি-দামি তারকারা। দীর্ঘদিন ঘরবন্দি সময় কাটিয়ে গত মাসে শুটিংয়ে যোগ দিয়েছেন মডেল ও অভিনেত্রী ফারজানা রিক্তা।

এ পর্যন্ত অনেকগুলো নাটকে কাজ করেছেন ‘আলতাবানু’ সিনেমাখ্যাত অভিনেত্রী ফারজানা রিক্তা। আসছে ঈদে প্রায় দেড় ডজন নাটকে দেখা যাবে তাকে।

করোনা পরিস্থিতি চিন্তা করে অনেকেই এই ঈদেও কাজে ফিরেননি। যারা ফিরেছেন তাদের মধ্যে এ পর্যন্ত আসছে ঈদে সর্বোচ্চ নাটকে দেখা যাবে ফারজানা রিক্তাকে।

বিষয়টি নিয়ে তিনি বলেন, ‘গত মাসের ৫ তারিখ হতে শুটিং শুরু করেছি। কতোদিন আর বসে থাকা যায়। এদিকে করোনা পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হচ্ছে দিন দিন। অনেকেই কাজেও ফিরছেন দেখে আমিও সাহস পেলাম।

যদিও ভয়ে থাকতে হয়। তারপরও কাজ করত হচ্ছে। নিজেকে নিরাপদ রেখে খুব সতকর্তা অবলম্বন করে শুটিং করছি। ইউনিটে সকলেই সচেতন। সুতারাং কাজ করতে এ পর্যন্ত কোনোই সমস্যা হয়নি।’

ফারজানা রিক্তা জানান, আসছে ঈদে অন্তত ১৫টি নাটকে দেখা যাবে তাকে। নাটকগুলোতে তার বিপরীতে দেখা যাবে জাহিদ হাসান, আ খ ম হাসান, মীর সাব্বির, আরফান আহমেদসহ আরও অনেক অভিনেতাদের। তালিকায় আরও আছেন নয়ন বাবু, আমিরুল ইসলাম নয়নসহ প্রমুখ।

ফারজানা রিক্তা আরও বলেন, ‘এবার করোনা পরিস্থিতি চিন্তা করে গল্পের প্রেক্ষাপট বদলেই কাজ করেছি। গল্পে অনেক সময় দেখা যায় নায়ক-নায়িকা পরস্পরের হাত ধরে থাকেন। তবে এবার এসব বিষয়গুলো পুরোপুরিভাবে এড়িয়ে যাওয়া হয়েছে। প্রত্যেকটি সেটের পরিচালক এই বিষয়ে খুবই সচেতন ছিলেন। কারণ তারা সবসময়ই চেয়েছেন শিল্পী বা অন্য কেও যাতে করে করোনায় আক্রান্ত না হন।’

ফারজানা রিক্তা অভিনীত ঈদে প্রচার হতে যাওয়া নাটকগুলোর মধ্যে অন্যতম হলো- সাত পর্বের ‘বিগ বস’, ‘আমি বাবা হতে চাই’, ‘শিয়াল বাড়ি’, ‘ডলার’, ‘জামাই আমার পয়সাওয়ালা’, ‘হার্টলেস মঞ্জু’, ‘স্বপ্ন পুরুষ’, ‘ধারের ভার’, ‘থার্মোমিটার জামাই’, ‘করোনা জামাই’, ‘লাভার জামাই’ এবং ‘আব্দুল বারেক জাপান যাবে’।

উল্লেখ্য, অমিতাভ রেজা পরিচালিত একটি বিজ্ঞাপনচিত্রের মাধ্যমে শোবিজ অঙ্গনে প্রবেশ করেন ফারজানা রিক্তা। তারপর তিনি অনেক দর্শকপ্রিয় নাটক-টেলিফিল্ম উপহার দিয়েছেন। ২০১৫ সালে ‘কার্তুজ’ সিনেমার মাধ্যমে বড় পর্দায় পা রাখেন তিনি। ফারজানা রিক্তা অভিনীত সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা হলো ‘আলতাবানু’।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...