The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

বাসা থেকে কাজ করার অনুমতিসহ সুখবরও দিলো ফেসবুক

বাসায় অফিসের ডেস্কের মতো পরিবেশ তৈরি করতে পারেন সে জন্যই প্রত্যেক কর্মীকে অতিরিক্ত ১ হাজার মার্কিন ডলার (বাংলাদেশী প্রায় ৮৫ হাজার টাকা) আর্থিক অনুদানও দেবে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসকে প্রতিরোধ করতে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ তাদের কর্মীদের বাসা থেকেই কাজ করার অনুমতি দিয়েছে। সেই সঙ্গে অফিসের পরিবেশ তৈরির অর্থ দেওয়ার ঘোষণাও দিয়েছে!

বাসা থেকে কাজ করার অনুমতিসহ সুখবরও দিলো ফেসবুক 1

যারা বাসায় অফিসের কাজ করছেন তারা যেনো বাসায় অফিসের ডেস্কের মতো পরিবেশ তৈরি করতে পারেন সে জন্যই প্রত্যেক কর্মীকে অতিরিক্ত ১ হাজার মার্কিন ডলার (বাংলাদেশী প্রায় ৮৫ হাজার টাকা) আর্থিক অনুদানও দেবে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ।

এই বিষয়ে ফেসবুকের একজন মুখপাত্র বলেছেন যে, ‘মার্কিন সরকার ও স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ অনুযায়ী ও আমাদের সংস্থার অভ্যন্তরীণ আলোচনার পরিপ্রেক্ষিতে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধের জন্য এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে যে, আমাদের কর্মীরা ২০২১ সালের জুলাই মাস পর্যন্ত বাসাই থেকেই কাজ করতে পারবেন।’

কর্মীদের কাছে পাঠানো একটি ই-মেইল বার্তায় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে যে, ‘অফিসের প্রয়োজনীয় কাজকর্ম বাড়িতে করার জন্য কর্মীদেরকে বেতনের বাইরে অতিরিক্ত এক হাজার মার্কিন ডলার অনুদান দেওয়া হবে।’

ফেসবুক কর্তৃপক্ষ আরও বলেছে, যেসব এলাকায় সরকার ছাড়পত্র দিয়েছে ও গত দুই মাস ধরে যেখানে করোনা সংক্রমণ নিয়মিত কমছে, সেসব এলাকায় আস্তে আস্তে পর্যায়ক্রমে আমাদের অফিস চালুর প্রক্রিয়া শুরু করবে। তবে অবশ্যই নিয়ম মেনে তবেই অফিস চালানো হবে।

আরও বলা হয়েছে যে, এ বছরের শেষের দিকে আমেরিকা এবং লাতিন আমেরিকায় আমাদের সংস্থার অফিস খুলতে শুরু করবে।

ইতিপূর্বে গত জুলাইয়ের শেষের দিকে টেক-জায়ান্ট গুগল ঘোষণা করেছিল যে, তাদের সকল কর্মীরা ২০২১ সালের ৩০ জুন পর্যন্ত বাসা হতে কাজ করতে পারবেন। অপরদিকে টুইটার তাদের কর্মীদের অনির্দিষ্টকালের জন্য বাসা থেকেই কাজ করার সুবিধা প্রদান করেছে।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...