The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

হিরো আলম এবার মাইকেল জ্যাকসন রূপে!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ একই অঙ্গে এতো রূপ। কখনও অভিনেতা, কখনও গায়ক নানা রূপে আগমনের পর এবার হিরো আলম এলেন মাইকেল জ্যাকসন রূপে!

হিরো আলম এবার মাইকেল জ্যাকসন রূপে! 1

গত সেপ্টেম্বরে প্রকাশিত ‘বাবু খাইছো’ শিরোনামে গানটি বেশ জনপ্রিয়তা পায় দেশের তরুণ সমাজদের মাঝে। ফেসবুক ও ইউটিউবে গানটি রিলিজ পাওয়ার পর খুব অল্প সময়েই তা ভাইরাল হয়ে যায়। তারপর একই শিরোনামে গানও গেয়েছেন হিরো আলম। এই গান নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় তুমুল আলোড়ন শুরু হয়। আলোচনা সমালোচনাকে গায়ে না মেখে নিজের মতো করেই হেঁটে যাচ্ছেন আশরাফুল আলম ওরফে হিরো আলম। গেয়েছেন ইওংরেজি এবং হিন্দি গানও। তুমুল তোপের মুখে পড়েন এই দুই গান গেয়ে। তারপরেও হিরো আলমের গান গাওয়া যেনো থেমে থাকেনি। এবার এই সোশ্যাল মিডিয়া ভাইরাল হলেন মাইকেল জ্যাকসন অবতারে।

গত মঙ্গলবার বিকেলে প্রকাশিত একটি গানের মিউজিক ভিডিওতে হিরো আলমকে এই চেহারায়তো দেখা যাচ্ছে। মিউজিক ভিডিও প্রকাশের আগে নিজের ইউটিউব চ্যানেলে শুটিং দৃশ্যও প্রকাশ করেছেন। এই মিউজিকি ভিডিওর অন্তরালের গানটিও হিরো আলম নিজেই। আর তার সঙ্গে গেয়েছেন রুমি।

এই বিষয়ে হিরো আলম বলেছেন, নতুন নতুন পরিকল্পনা করেই কাজ করছি। নতুন পরিকল্পনার অংশই হলো এটি। আমার মনে হয় কালা মাইকেল জ্যাকসন গানটির ভিডিও মানুষের কাছে খুব ভালো লাগবে। আমি তো সব মানুষের জন্যই গান বা ভিডিও করি না। প্রত্যেকের একটি ভক্তশ্রেণীও রয়েছে। আমারও একটি ভক্তশ্রেণী রয়েছে যারা আমার গান দেখে পছন্দ করে, শোনে। আমি তাদের জন্যই কাজ করে থাকি। আমি মনে করি আমার কাজ সবারই দেখার দরকার নেই, সবার শোনারও দরকার নেই। যারা আমার শ্রেণীভক্ত তারাই শুনবে এবং দেখবে। আমি তাদের জন্যই একের পর এক কাজ করছি। গানটি খুব শীঘ্রই প্রকাশ হবে বলেও জানান আশরাফুল আলম ওরফে হিরো আলম।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর

অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...