The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

পরিচ্ছন্ন মানসিকতার স্বজ্জন ব্যক্তিত্ব ছিলেন খসরু ভাই: আসিফ

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ গতকাল (বুধবার) করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি, সাবেক আইনমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য আবদুল মতিন খসরু এমপি।

পরিচ্ছন্ন মানসিকতার স্বজ্জন ব্যক্তিত্ব ছিলেন খসরু ভাই: আসিফ 1

৭১ বছর বয়সী এ রাজনীতিকের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী আসিফ আকবর ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়ে বলেছেন, আবদুল মতিন খসরু পরিচ্ছন্ন মানসিকতা ও একজন স্বজ্জন ব্যক্তিত্ব ছিলেন।

গায়ক আসিফ তার স্ট্যাটাসে আরও লেখেন, ‘কুমিল্লাতে আমরা প্রতিবেশী। ছোটবেলা হতেই আবদুল মতিন খসরু ভাইকে দেখে আসছি। তিনি পরিচ্ছন্ন মানসিকতার একজন স্বজ্জন প্রিয় ব্যক্তিত্ব ছিলেন। তিনি ক্লেদাক্ত রাজনীতির মাঠের ব্যতিক্রমী এক মহীরুহ ছিলেন। কুমিল্লার কৃতি সন্তান অ্যাডভোকেট আবদুল মতিন খসরুর মৃত্যুতে আমরা কুমিল্লাবাসী হারালাম একজন ভালো নেতা, একজন ভালো মানুষ ও একজন সুপ্রতিবেশী।তাঁকে বিনম্র শ্রদ্ধা। খসরু ভাইয়ের আত্মার শান্তি কামনা করছি। মহান আল্লাহ উনার পরিবারকে এই শোক সহ্য করার শক্তি দিন।’

উল্লেখ্য, গত ১৫ মার্চ সংসদ সচিবালয়ে করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা দিয়েছিলেন আবদুল মতিন খসরু। পরদিন ১৬ মার্চ তার রিপোর্ট পজিটিভ আসে। ওইদিনই তাকে ঢাকা সিএমএইচে ভর্তি করা হয়। শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটায় ২৮ মার্চ রাতে আবদুল মতিন খসরুকে আইসিইউতে নেওয়া হয়। তারপর ১ এপ্রিল করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। ৩ এপ্রিল তাকে আইসিইউ হতে সাধারণ কেবিনে নেওয়া হয়। তারপর তাঁর শারীরিক অবস্থা খারাপ হলে সাবেক এই আইনমন্ত্রীকে মঙ্গলবার লাইফ সাপোর্টে নেওয়া হয়। বুধবার বিকাল ৪টা ৫০ মিনিটে তাকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...