The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

কোনো কেসিং লাগবে না নকিয়ার নতুন ফোনে!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ নকিয়া এমন এক নতুন ফোন আনছে যে ফোনে কোনো কেসিং ব্যবহার করতে হবে না। যে স্মার্টফোন আজ ২৭ জুলাই লঞ্চ হওয়ার কথা।

কোনো কেসিং লাগবে না নকিয়ার নতুন ফোনে! 1

জানা গেছে, এই নতুন ফোনে থাকবে চমক। ফোনটি ব্যবহার করতে আলাদা করে কোনো কেসিং লাগানোর প্রয়োজন হবে না। সম্প্রতি নকিয়া মোবাইল ইন্ডিয়ার টুইটার পেজ থেকে একটি স্মার্টফোনের ছবি শেয়ার করা হয়। যে স্মার্টফোন আজ ২৭ জুলাই লঞ্চ হওয়ার কথা।

যে স্মার্টফোনটির ছবিও শেয়ার করেছে নকিয়া, তাতে স্পষ্ট করে ওই স্মার্টফোনের বিশেষত্ব দেওয়া রয়েছে। কী সেই বিশেষত্ব, যার জন্য মানুষ অন্য সমস্ত স্মার্টফোন বাদ দিয়ে নকিয়ার ওই স্মার্টফোনটিই কিনবেন?

এই বিষয়ে নকিয়ার পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে যে, নতুন যে স্মার্টফোন লঞ্চ করতে যাচ্ছে নকিয়া, সেই স্মার্টফোনে আলাদা করে কোনও কেসিং ব্যবহার করার প্রয়োজন পড়বে না।

বেশিরভাগ স্মার্টফোন ব্যবহারকারীই কোনও ফোন কেনার পরই আগে কেসিং ব্যবহার করেন। যাতে ফোনের বডি পার্টে কোনও আঘাত লাগলেও ফোনটি যেনো কোনো প্রকার ক্ষতিগ্রস্ত না হয়।

তবে নকিয়া দাবি করেছে, তারা যে স্মার্টফোনটি লঞ্চ করছে, তার বডি পার্ট এমন জিনিস দিয়ে তৈরি করা হয়েছে যে, কোনো রকম কেসিংয়ের প্রয়োজনই পড়বে না। যদিও নতুন এই স্মার্টফোন সম্পর্কে আর কোনও তথ্যই প্রকাশ করেনি নকিয়া।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের সার্জিক্যাল মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...