The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

একটি কূপের পানি সবকিছুকেই পাথর করে দেয়!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এই কথাটি শুনতে রূপকথার গল্পের মতো লাগলেও ঘটনাটি সত্যি। এমন একটি কূপের সন্ধান পাওয়া গেছে যে কূপের পানি সবকিছুকেই পাথর করে দেয়!

একটি কূপের পানি সবকিছুকেই পাথর করে দেয়! 1

অনেকটা রূপকথার গল্পের কোনো এক চরিত্র নেমে এসেছে কূপের পানিতে, তার হাতের ছোঁয়ায় সব কিছু সোনা হয়ে যাবে। নয়তো বরফ বা পাথর! তবে আমরা এগুলো কথা সব সময় রূপকথার গল্পেই শুনে আসছি। শুনলে অবাক হবেন যে এমনটা এবার বাস্তবেই হচ্ছে। তবে মানুষ বা যাদুর কাঠির ছোঁয়ায় নয়, একটি কূপের পানির ছোঁয়ায়!

ইংল্যান্ডের নেয়ার্সবরো টাউনে রয়েছে এই রহস্যময় কূপ। নাম ‘মাদার শিপটন গুহা’ যার পানি সব কিছুকেই পাথর করে দেয়। আশ্চর্য এই ক্ষমতার জন্য বিশ্বজুড়ে পরিচিত এই কূপটি।

এই কূপের মধ্যে গাছের পাতা, কাঠের টুকরো পড়ার কিছু পরেই একেবারে জমে পাথর হয়ে যায়। এর থেকেই ছড়িয়ে পড়েছে আতঙ্ক। ভয়ে অনেকেই কূপের ধারে-কাছেও যেতে চান না। যদি একবার কেও পড়ে যায় তাহলে আর তার রক্ষা নেই।

কৌতূহলী অনেকেই উপর থেকে টুপি, জুতো রুমালসহ বিভিন্ন বস্তু কূপের পানিতে ফেলে দিয়েছেন। কিছুক্ষণ পরেই সে সব জিনিস পাথর হয়ে গেছে। কেও আবার দড়ি দিয়ে ঝুলিয়ে রেখেছিলেন টেডি বিয়ার, সাইকেল এমনকি কেটলি। দড়ির কিছু অংশসহ ঝুলন্ত বস্তুগুলি সম্পূর্ণ পাথরে পরিণত হয়ে যায়।

ওই কূপের ধারে এখনও ঝুলছে অষ্টাদশ শতকের টুপি- চেইন। দুইশো থেকে দুইশো পঞ্চাশ বছর ধরে একই রকম অবস্থা চলছে এই কূপের। কৌতূহলী অনেকেই সাহস নিয়ে ভয়ঙ্কর এই কূপের ধারে যান। কোনোরকমে সাবধানে কূপের গা দিয়ে কিছু একটা ঝুলিয়ে দেন। পানির স্পর্শ লাগতেই ওই সব বস্তু তখন পাথর হয়ে যায়।

ধারণা করা হচ্ছে যে, এই কূপের পানিতে এমন কিছু রয়েছে যার রাসায়নিক মাত্রা সবকিছুকেই পাথরে পরিণত করে দেয়। তাই চাঞ্চল্য সৃষ্টিকারী এই কূপের পানি পরীক্ষার সাহস কেও পায়নি আজ পর্যন্ত।

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের কাপড়ের মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

Loading...