The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

redporn sex videos porn movies black cock girl in blue bikini blowjobs in pov and wanks off.

ঐতিহাসিক হাজীগঞ্জ বড় মসজিদ

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ শুভ সকাল। শুক্রবার, ২ ডিসেম্বর ২০২২ খৃস্টাব্দ, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরি। দি ঢাকা টাইমস্ -এর পক্ষ থেকে সকলকে শুভ সকাল। আজ যাদের জন্মদিন তাদের সকলকে জানাই জন্মদিনের শুভেচ্ছা- শুভ জন্মদিন।

ঐতিহাসিক হাজীগঞ্জ বড় মসজিদ 1

যে মসজিদটি আপনারা দেখতে পাচ্ছেন সেটি চাঁদপুরের ঐতিহাসিক হাজীগঞ্জ বড় মসজিদ। ইমারত নির্মাণের ক্ষেত্রে কাঠামো পরিকল্পনার সঙ্গে যে নির্মাণশৈলী ফুটিয়ে তোলা হয় সেটির দৃষ্টান্ত এই মসজিদ।

এটি চাঁদপুর জেলা সদর হতে ২০ কি.মি পূর্বে হাজীগঞ্জ বাজারে অবস্থিত। বাংলা ১১৭৫ হতে ১২০০ সালের মধ্যে হজরত মকিমউদ্দিন (রহ.) ইসলাম ধর্ম প্রচারের উদ্দেশে আরব হতে এই এলাকায় আগমন করেছিলেন। তিনি সপরিবারে বর্তমান বড় মসজিদের ঠিক মেহরাব সংলগ্ন স্থান, যেখানে একটু উঁচু ভূমি ছিল, সেখানে আস্তানা তৈরি করে পরিবার-পরিজন নিয়ে বসতি স্থাপন করেছিলেন। মূলত এই এলাকায় হাজি মকিমউদ্দিন (রহ.) ইসলামধর্ম প্রচারের মাধ্যমেই ইসলামের প্রচার শুরু করেন।

তাঁরই বংশের শেষ পুরুষ হজরত মনিরুদ্দিন হাজি ওরফে মনাই হাজির (রহ.) দৌহিত্র আহমাদ আলী পাটওয়ারী (রহ.) বাংলা ১৩২৫ হতে ১৩৩০ সালের দিকে বড় মসজিদের মেহরাব কিংবা তৎসংলগ্ন স্থানজুড়ে প্রথমে একচালা খড়ের ইবাদতখানা, অত:পর খড় এবং গোলপাতা দিয়ে তৈরি দোচালা মসজিদ নির্মাণ করেছিলেন। যা পরবর্তী সময় টিনের দোচালা মসজিদ থেকে পাকা মসজিদ স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়। ১৩৩৭ বঙ্গাব্দের ১৭ আশ্বিন আহমাদ আলী পাটওয়ারী (রহ.) -এর ইচ্ছায় মাওলানা আবুল ফারাহ জৈনপুরীর (রহ.) হাতে পাকা মসজিদের ভিত্তিস্থাপন করা হয়েছিলো।

হাজীগঞ্জ ঐতিহাসিক বড় মসজিদ এই অঞ্চলের অন্যতম মুসলিম নিদর্শন হিসেবেই পরিচিত। মসজিদটি নির্মাণকালে স্থাপত্যশিল্পের যে নির্মাণশৈলী দেওয়া হয়, তা যেনো স্থাপত্যশিল্পেরই বিশুদ্ধ ব্যাকরণ বলা যায়। মসজিদের বিভিন্ন অংশে যে কারুকাজ ফুটিয়ে তোলা হয়, তা কালের সাক্ষ্য বহন করে। ঐতিহ্যবাহী এই মসজিদটি ৩ অংশে নির্মিত হয়। প্রথম অংশ ৪ হাজার ৭৮৪ বর্গফুট, মাঝের অংশ ১৩ হাজার ৬ বর্গফুট ও তৃতীয় অংশ হলো ১ হাজার ৬১৫ বর্গফুট।

জানা যায়, সর্বমোট ২৮ হাজার ৪০৫ বর্গফুট আয়তনের ওই মসজিদটি প্রথম অংশে হজরত মাওলানা আবুল ফারাহ জৈনপুরী (রহ.) মাচার ওপর বসেন, তাঁর পবিত্র হাতে চুন-সুরকির মসলা কেটে কেটে মেহরাবসংলগ্ন দেওয়াল ঘুরিয়ে মসজিদের প্রথম অংশের ওপরের দিকে ‘সুরা ইয়াছিন’ এবং ‘সুরা জুমআ’ সেখানে লিপিবদ্ধ করেন। বর্তমান সময় সংস্কারকালে তা উঠিয়ে মসজিদের কবরস্থানেই দাফন করা হয়।

জানা যায়, ১৯৫৩ সালে ১২৮ ফুট উঁচু মিনারটি তৈরি হয়েছিল। সুউচ্চ এই মিনারটিরও পৃথক একটি বৈশিষ্ট্য রয়েছে। তা হলো মসজিদের প্রধান প্রবেশদ্বারের ওপর এতো উঁচু মিনারের উপস্থিতি সেকালের নির্মাণ বিষয়টিকেও ভাবিয়ে তোলে। মিনারের উঁচু প্ল্যাটফর্মে বহু মুসুল্লি এবং পর্যটক উঠে হাজীগঞ্জের চারপাশের দৃশ্যও অবলোকন করেন। তথ্যসূত্র: https://www.sonalinews.com

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে করণীয়

# সব সময় ঘরে থাকার চেষ্টা করি।
# জরুরি প্রয়োজনে বাইরে বের হলে নিয়মগুলো মানি, মাস্ক ব্যবহার করি।
# তিন লেয়ারের কাপড়ের মাস্ক ইচ্ছে করলে ধুয়েও ব্যবহার করতে পারি।
# বাইরে থেকে ঘরে ফেরার পর পোশাক ধুয়ে ফেলি। কিংবা না ঝেড়ে ঝুলিয়ে রাখি অন্তত চার ঘণ্টা।
# বাইরে থেকে এসেই আগে ভালো করে (অন্তত ২০ সেকেণ্ড ধরে) হাত সাবান বা লিকুইড দিয়ে ধুয়ে ফেলি।
# প্লাস্টিকের তৈরি পিপিই বা চোখ মুখ, মাথা একবার ব্যবহারের পর অবশ্যই ডিটারজেন্ট দিয়ে ভালো করে ধুয়ে শুকিয়ে ব্যবহার করা যেতে পারে।
# কাপড়ের তৈরি পিপিই বা বর্ণিত নিয়মে পরিষ্কার করে পরি।
# চুল সম্পূর্ণ ঢাকে এমন মাথার ক্যাপ ব্যবহার করি।
# হাঁচি কাশি যাদের রয়েছে সরকার হতে প্রচারিত সব নিয়ম মেনে চলি। এছাড়াও খাওয়ার জিনিস, তালা চাবি, সুইচ ধরা, মাউস, রিমোট কন্ট্রোল, মোবাই, ঘড়ি, কম্পিউটার ডেক্স, টিভি ইত্যাদি ধরা ও বাথরুম ব্যবহারের আগে ও পরে নির্দেশিত মতে হাত ধুয়ে নিন। যাদের হাত শুকনো থাকে তারা হাত ধোয়ার পর Moisture ব্যবহার করি। সাবান বা হ্যান্ড লিকুইড ব্যবহার করা যেতে পারে। কেনোনা শুকনো হাতের Crackle (ফাটা অংশ) এর ফাঁকে এই ভাইরাসটি থেকে যেতে পারে। অতি ক্ষারযুক্ত সাবান বা ডিটারজেন্ট ব্যবহার থেকে বিরত থাকাই ভালো।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...
sex không che
mms desi
wwwxxx