চিত্র-বিচিত্র: একটি প্রাচীন শহর ‘পেত্রা’র কাহিনী

দি ঢাকা টাইমস্‌ ডেস্ক ॥ পৃথিবীতে অনেক শহর রয়েছে। কিন্তু কিছু শহর একেবারেই ব্যতিক্রমি শহর। এসব শহরের মধ্যে একটি শহরের নাম পেত্রা।

Petra-0

পেত্রা একটি প্রাচীন আরব শহর। বর্তমান জর্দানের দক্ষিণ-পশ্চিমের গ্রাম ওয়াদি মুসার ঠিক পূর্বে হুর পাহাড়ের পাদদেশে এর অবস্থান। ৪০০ খ্রিস্টপূর্বাব্দ থেকে ২০০ খ্রিস্টপূর্বাব্দ পর্যন্ত এটি ছিল নাবাতাইন রাজ্যের রাজধানী।

পেত্রা নগরী মূলত একটি অত্যন্ত সুরক্ষিত দুর্গ ছিল। এটি বিখ্যাত এর অসাধারণ প্রাকৃতিক সৌন্দর্য আর গুরুত্বপূর্ণ স্মৃতিস্তম্ভগুলোর জন্য। এটি তৈরি হয়েছে গুহার মধ্যে যা কোথাও কোথাও মাত্র ১২ ফুট চওড়া, মাথার ওপরে পাথরের দেয়াল। গুহার পাশেই রয়েছে কঠিন পাথরের দেয়ালের গায়ে গ্রথিত সেই প্রাচীন দালানগুলো। যার মধ্যে সবচেয়ে বিখ্যাত হল ‘খাজনেত ফিরাউন’ নামের মন্দিরটি। মন্দিরটি ফারাওদের ধনভাণ্ডার নামেও পরিচিত। আরো রয়েছে একটি অর্ধগোলাকৃতির নাট্যশালা যেখানে প্রায় ৩০০০ দর্শক একসাথে বসতে পারে।

সৌন্দর্য্য প্রাকৃতিক কারুকার্য এমন সব কিছু মিলিয়েই পেত্রা বিশ্ববাসীর কাছে একটি বিশেষ জায়গা। আর তাই প্রতিদিন এখানে বহু পর্যটক আসেন। পর্যটকরা ঘুরে-ফিরে দেখেন এখানকার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্য। সবাই অবিভূত হন পেত্রার পারিপার্শ্বিক দৃশ্য দেখে। দেশ-বিদেশে তাইতো পেত্রার খ্যাতি ছড়িয়ে রয়েছে। আরব দেশে যেসব পর্যটক আসেন তাদের অধিকাংশই এই পেত্রার সান্নিধ্য নিয়েছেন। প্রাচীন এই আরব শহর পেত্রা তাইতো সকলের হৃদয়ে জায়গা করে নিয়েছে। আপনিও ইচ্ছে করলে পেত্রার সৌন্দর্য্য নিজ চোখে দেখে যেতে পারেন।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...