The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

পরিবারের অনুমতি ছাড়া বিয়ের আগে নিজেকে করুন কয়েকটি প্রশ্ন

দি ঢাকা টাইমস্‌ ডেস্ক ॥ প্রেম ভালোবাসায় বাধা বিপত্তি আসবেই। কিন্তু সেই বাধা বিপত্তির কারণে যদি আপনি ভুল সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেন তবে আখেরে তা আপনার জন্য সুখকর নাও হতে পারে। আসলে আমরা পরিবারের অনুমতি ছাড়া বিয়ের কথা বলছি। এই ধরনের পরিস্থিতির ক্ষেত্রে নিজেকে কতগুলো প্রশ্ন করুন।


72382_548672265166148_1589920737_n

১. আপনি কি আপনার পরিবারের অনুমতি নেওয়ার সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছেন?

বাবা মা কখনোই সন্তানের অমঙ্গল চান না। তাই আপনার এই বিয়ের ব্যাপারে তাদের অনুমতি না পাওয়ার পেছনে কি আপনার চেষ্টার ত্রুটি রয়েছে নাকি অন্য বিষয় তা ভেবেছেন কি? তাই পরিবারের সম্মতি নেওয়ার সর্বোচ্চ চেষ্টা করুন, তাদের কথা শুনুন কেন তারা অনুমতি দিচ্ছে না।

২. আপনি কি আপনার পরিবারকে ছেড়ে থাকতে পারবেন?

আপনার এতটা বছর যাদের সাথে থাকা তাদেরকে ছেড়ে আপনি একা থাকতে পারবেন। হ্যাঁ মেয়েদের ক্ষেত্রে তাদের ছেড়ে থাকতেই হয় কিন্তু সেই ছাড়া আর এই ছাড়ার মধ্যে রয়েছে অনেক ফারাক। তাই আরেকবার ভেবে দেখুন যা করছেন তা ভুল করছেন না তো?

First_LooK____Baps

৩. আপনাদের দুই পক্ষকেই কি “না” শুনতে হয়েছে?

পরিবারের অনুমতি ছাড়া বিয়ের আগে আপনাদের দুইজনের পরিবারের সম্মতি নেওয়ার চেষ্টার ত্রুটি ছিল না। কি ঠিক তাই তো? আরেকবার ভেবে দেখুন সর্বোচ্চ চেষ্টার মধ্যেই কি আপনাদের দুই পরিবারেই এই বিয়ের বিপক্ষে না শুনতে হয়েছে।

৪. আপনার ভালোবাসার মানুষটি কি এর জন্য যোগ্য?

এই প্রশ্নটি আমরা বলবো আপনার জীবনের টার্নিং পয়েন্ট। আপনি যার জন্য আপনার সবচেয়ে কাছের মানুষ আপনার পরিবারকে ছেড়ে চলে যাচ্ছেন তিনি কি আপনার এই ত্যাগের যোগ্য। আবেগ দিয়ে নয় এই প্রশ্নটি বুদ্ধিমত্তা দিয়ে বিবেচনা করুন।

৫. আপনার দাম্পত্য জীবনের সমস্যা সমাধানের উপায় ভেবেছেন কি?

দাম্পত্য জীবনে অনেক সমস্যা ও দুর্ঘটনার মুখোমুখি হতে হয় মানুষদের। সেই সকল দুর্ঘটনার কথা বাদ দিয়ে সমস্যাগুলোর সমাধানের কোন উপায় ভেবে রেখেছেন কি? কেননা দুর্ঘটনার উপর মানুষের হাত নেই কিন্তু সমস্যার সমাধান করা সম্ভব, সেটি পারিবারিকভাবে হয়ে থাকে। পরিবার ছাড়া কিভাবে করবেন?

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...