সন্ধান মিললো এক প্রাগৈতিহাসিক রুটির!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ বিশ্বে প্রতিনিয়তই ঘটছে নানা ঘটনা। যেমন এবার সন্ধান মিললো এক প্রাগৈতিহাসিক রুটির! যা সকলকেই বিস্মিত করেছে।

Laughing find a prehistoric bread

আজকের কথা নয়, সাড়ে ১২ হাজার বছর আগের কথা। তখন মানুষ যে রুটি খেতো তা বানাতে সক্ষম হয়েছেন বিজ্ঞানীরা। একটি পাতরের খাঁজে ওই রুটির অংশ বিশেষ উদ্ধার করেন বিজ্ঞানীরা। সেটিও হাজার বছরের পরিক্রমায় পাথরেই পরিণত হয়েছিল। বিজ্ঞানীরা ইসরায়েলের হুজুক মুসা নামক স্থানে এই প্রাগৈতিহাসিক রুটি খুঁজে পান।

প্রাগৈতিহাসিক আমলের পদ্ধতিতে বানানো এই রুটি মধ্যযুগেও ইউরোপের দেশগুলোতে খাওয়া হতো। সেসময় মাত্র এক পয়সার বিনিময়ে মিলতো এসব রুটি। বেশ সুস্বাদু এসব রুটি সেসময় ইউরোপে কয়লার আগুনে বানানো হতো। এই একটি রুটিই হতে পারে ‘নিওলিথিক রেভ্যুলেশন’-এর নিশানা।

তেল আবিবের বার-ইলান বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক মোর্ডেচাই কিজলভ সংবাদ মাধ্যমকে জানান, সেই সময়ে ব্যবহৃত জিনিসপত্রের ব্যবহারে এই রুটি বানানোর কথা চিন্তা ভাবনা করছেন। ইতিমধ্যে বন্য পরিবেশে উৎপন্ন যব সংগ্রহ করা হয়। এগুলো হতে শস্যদানা আলাদা করা হয়েছে। সেই সময়ে এসব কাজে যেসব পাথর বা গাছের অংশ ব্যবহার করা হতো, এখন সেগুলোই ব্যবহার করা হচ্ছে।

পূর্বে সাউদার্ন লিভান্ট অঞ্চলে সেই সময়ের বিভিন্ন আকৃতির কোণ পাওয়া যায়। এগুলো শস্যদানা গুড়া করা অথবা প্রক্রিয়াজাত করার কাজেই বানানো হয়েছিল বলেই মনে করছেন বিজ্ঞানীরা। এক কোণে শস্যদানা ছাড়িয়ে রাখা হতো, আর অন্য কোণে তার খোসা ছাড়িয়ে রাখা হতো। এসব কোণেই সেই সময়ের ব্যবহৃত যন্ত্রপাতি দিয়ে রুটি বানানোর চেষ্টা চলছে।

Advertisements
Loading...