নৌকা ও ধানের শীষের ভোটযুদ্ধ শেষ: সাতকানিয়ায় গুলিতে ১ জন নিহত

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ এবারই প্রথমবারের মতো নৌকা ও ধানের শীষসহ দলীয় প্রতীক নিয়ে মেয়র প্রার্থীরা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করলেন। ভোটযুদ্ধ ৪টায় শেষ হয়েছে। সাতকানিয়ায় গুলিতে ১ জন নিহত।

Municipal elections

দেশের ২৩৪ পৌরসভায় নতুন জনপ্রতিনিধি বেছে নিতে ব্যাপক নিরাপত্তার মধ্যদিয়ে ভোট নেওয়া হয়েছে। এবারই প্রথমবারের মতো মেয়র পদের লড়াই হলো দলীয় প্রতীকে।

২৩৪ পৌরসভায় নির্বাচনী এলাকায় ভোটার রয়েছে ৭১ লাখ। দেশের মোট ভোটারের মাত্র সাড়ে ৭ শতাংশ পৌর নির্বাচনে তাদের রায় দেবেন। তবে দীর্ঘ ৭ বছর পর নৌকা-ধানের শীষের লড়াইয়ের কারণে এই ভোট রাজনৈতিক ‘মর্যাদার’ লড়াইয়ে পরিণত হয়।

শীতের কুয়াশার মধ্যে আজ বুধবার সকাল ৮টায় শুরু হয়ে বিকাল ৪টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে এসব পৌর এলাকায় কেন্দ্রে কেন্দ্রে ভোট নেওয়া হয়েছে। ইতিমধ্যে ভোটগ্রহণ শেষ হয়েছে এখন শুধুই ফলাফল পাওয়ার অপেক্ষা।

তবে দেশের বেশ কিছু স্থানে বেশ কিছু অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেছে। সকালে চট্টগ্রামের সাতকানিয়ায় দুই কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে ১ জন নিহত হয়েছেন।

জানা যায়, আজ বুধবার সকাল ৮টায় ভোট শুরুর আড়াই ঘণ্টার মাথায় ৯নং ওয়ার্ডে সাতকানিয়া সরকারি কলেজ হোস্টেলের পূর্ব পাশে কাউন্সিলর পদপ্রার্থী মোজাম্মেল হক এবং মনিরুল ইসলামের সমর্থকদের মধ্যে এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন।

জানা যায়, নিহত মোহাম্মদ নুরুল আমিন (৪০) সাতকানিয়ার গোয়াজর পাড়ার আবদুর রহিমের ছেলে। কক্সবাজারের মহেশখালীতে তার একটি লেপ-তোষকের দোকান আছে। নিহতের চাচাতো ভাই আবুল কালাম বলেছেন, নুরুল ভোট দেওয়ার জন্য বাড়িতে এসেছিলেন।

উল্লেখ্য, ওই ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদপ্রার্থী মোজাম্মেল হক এবং মনিরুল ইসলাম দুজনেই আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে জড়িত বলে স্থানীয়রা জানিয়েছেন।

Advertisements
আপনি এটাও পছন্দ করতে পারেন
Loading...