ফুটন্ত তেলে বসে ধ্যান করেন সন্ন্যাসী! [ভিডিও]

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ ফুটন্ত তেলে কারও পক্ষে বসে থাকা সত্যিই এক অসম্ভব ব্যাপার। কিন্তু এক সন্ন্যাসী এমনই এক অসম্ভবকে সম্ভব করলেন।

When meditating monk boiling oil

সংবাদ মাধ্যমের খবরে বলা হয়,সম্প্রতি থাইল্যান্ডের এক বৌদ্ধ সন্ন্যাসীর আগুনের আঁচে বসানো চুলার ওপর ফুটন্ত তেলভর্তি পাত্রের মধ্যে ধ্যান করার ছবি ও ভিডিও প্রকাশ হওয়ায় হৈ চৈ পড়ে গেছে।

থাইল্যান্ডের ব্যাংকক পোস্ট ও যুক্তরাজ্যের ডেইলি মেইলে প্রকাশিত ছবিতে দেখা যায়, ফুটন্ত তেলের মধ্যে বসেও মুখে যন্ত্রণার তিলমাত্র লেস নেই। বরং ছড়িয়ে রয়েছে প্রশান্তি। ভিডিও ক্লিপে দেখা যাচ্ছে সন্ন্যাসী এক মনে ধ্যান করছেন ফুটন্ত তেলভর্তি পাত্রে। আর পাত্রটা চুলার গনগনে আঁচে বসানো রয়েছে!

ব্যাংকক পোস্ট বলেছে, থাইল্যান্ডের নোং বুয়া লাম্ফু এলাকার এক বৌদ্ধ মঠে থাকেন এই সন্ন্যাসী। প্রকাশিত ভিডিও ক্লিপে ‘আশ্চর্য’ ওই সন্ন্যাসীকে দেখা গেলেও তাঁর পরিচয় প্রকাশ করেনি সংবাদমাধ্যমগুলোর খবরে।

ভিডিওতে আরও দেখা যায়, ধ্যানমগ্ন সন্ন্যাসীকে ঘিরে রয়েছেন ভক্তরা। কেও কেও আবার এগিয়ে আসছেন তাঁর স্পর্শ নিতে। আরেকজন সন্ন্যাসীর ফুটন্ত তেলে বসে ধ্যান করার দৃশ্যও রয়েছে ভিডিওটিতে।

ভক্তদের সঙ্গে কথা বলে ব্যাংকক পোস্ট লিখেছে, তেল ঢালার আগে পাত্রে কিছু লতাপাতা ঔষধি দেওয়া হয়। তাতেই ফুটন্ত তেলের উত্তাপ অনেকটা কমে যায় বলে ধারণা করা হচ্ছে।

তবে এতো সহজে ভোলেনটি যুক্তিবাদীরা। তাঁদের বক্তব্য হলো, ওই কড়াইয়ের তেল সত্যিই ফুটন্ত কি না তা ভিডিও ক্লিপ দেখে স্পষ্ট করে কিছু বোঝা যাচ্ছে না। এ ছাড়া এমনও হতে পারে যে‚ আসল কলকাঠি লুকিয়ে রয়েছে ওই কড়াইয়ে। হয়তো ওই পাত্রে দুটো স্তর রয়েছে। যে কারণে উত্তাপ সন্ন্যাসী অবধি এসে পৌঁছাচ্ছেই না।

শুধু এই ভিডিওটি দিয়ে যুক্তিবাদীরা কিছুই প্রমাণ করতে পারেননি। তাই আপাতত সত্য-মিথ্যা বা তর্ক ও বিশ্বাসের মাঝে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সরব রয়েছে সন্ন্যাসীর ফুটন্ত তেলে ধ্যানের এই ভিডিও ক্লিপটি। এটি এখন রীতিমতো ভাইরাল!

Advertisements
Loading...