The Dhaka Times
তরুণ প্রজন্মকে এগিয়ে রাখার প্রত্যয়ে, বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সামাজিক ম্যাগাজিন।

ডোনাল্ড ট্রাম্পকে নিয়ে কথা বলা নিষেধ ইন্দোনেশিয়ায়!

বিশ্বজুড়ে প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হলেও ইন্দোনেশিয়ায় ট্রাম্পকে নিয়ে কথা বলা নিষেধ!

দি ঢাকা টাইমস্ ডেস্ক ॥ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ৭টি মুসলিম দেশের নাগরিকদের ওপর ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা জারি করার পর বিশ্বজুড়ে প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হলেও ইন্দোনেশিয়ায় ট্রাম্পকে নিয়ে কথা বলা নিষেধ!

ডোনাল্ড ট্রাম্পকে নিয়ে কথা বলা নিষেধ ইন্দোনেশিয়ায়! 1

নিষেধাজ্ঞার বিষয়ে সমগ্র বিশ্ব ব্যাপকভাবে প্রতিবাদে মুখর হলেও বিশ্বের সবচেয়ে বড় মুসলিম দেশ ইন্দোনেশিয়া একেবারে নিশ্চুপ। উল্টো দেশটি তাদের নাগরিকদের ট্রাম্পের বিষয়ে কথা বলতে নিষেধ করেছে। ফরেন পলিসি সাময়িকীর প্রতিবেদনে এমন তথ্য উঠে এসেছে।

গত সপ্তাহে এক অনুষ্ঠানে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো বলেছেন, ট্রাম্পের নীতির প্রভাব তাদের ওপর পড়েনি। আর তাই এই নিয়ে তারা কেনো ক্ষোভ দেখাবেন বলে প্রশ্ন রেখেছেন তিনি!

উইদোদোর মুখপাত্র জোহান বুদি বলেছেন যে, ইন্দোনেশিয়ার জনগণের ওপর আমেরিকার প্রেসিডেন্টের নীতির কোনো প্রভাব যাতে না পড়ে, তা নিশ্চিত করেছেন উইদোদো। তাই ট্রাম্পের বিষয়ে কথা না বলতে জনগণকে বলা হয়েছে।

অপরদিকে ট্রাম্পের নিষেধাজ্ঞার আদেশের বিষয়ে মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশ মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী নাজিব রাজাকেরও কোনো টুঁ শব্দ করেননি। অথচ এই নাজিবই মিয়ানমারে সংখ্যালঘু রোহিঙ্গা মুসলিম নির্যাতনের বিষয়ে সবচেয়ে উচ্চকিত।

তবে ট্রাম্পের বিদ্বেষমূলক নীতির বিষয়ে নেতারা নীরব থাকায় ইন্দোনেশিয়া এবং মালয়েশিয়ার সাধারণ জনগণও প্রচণ্ডভাবে ক্ষুব্ধ হয়েছেন।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো
Loading...